খুলনা | শনিবার | ১৮ জানুয়ারী ২০২০ | ৪ মাঘ ১৪২৬ |

Shomoyer Khobor

বিজয়ের মাস ডিসেম্বর 

নিজস্ব প্রতিবেদক ও যশোর প্রতিনিধি  | প্রকাশিত ০৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:৫২:০০

আজ ৬ ডিসেম্বর, ১৯৭১ বন্ধুরাষ্ট্র ভারত এদিন স্বাধীন সার্বভৌম রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দেয় আমাদের প্রিয় মাতৃভূমি বাংলা দেশকে। মেজর জলিলের নেতৃত্বাধীন মুক্তিযোদ্ধারা তখন সাতক্ষীরা মুক্ত করে খুলনার দিকে অগ্রসর হচ্ছেন। তিনি লিখেছেন, “বেলা এগারোটার সময় ‘অল ইন্ডিয়া রেডিও’ মারফত ঘোষণা করা হলো যে ভারত বাংলাদেশকে সার্বভৌম রাষ্ট্র বলে স্বীকৃতি দিয়েছে। 
দীর্ঘ ন’মাস যাবত বাঙালি জাতি অধীর আগ্রহে এ দিনটির জন্য প্রতীক্ষায় ছিল। সংবাদটা শুনে মন থেকে চিন্তা ও উত্তেজনা দূরীভূত হয়। হঠাৎ স্বীকৃতির এই ঘোষণা শুনে সাড়ে সাত কোটি বাঙালির বিধ্বস্ত অন্তর গর্বে ফুল উঠল।’
মুক্তিবাহিনীর কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে মিত্রবাহিনী বীরদর্পে এগিয়ে যায়। সারাদেশে বারুদের গন্ধ। বাঙালির লাশ পড়ে আছে এ দেশের পথে প্রান্তরে। পূর্ব পাকিস্তান নামক ভূ-খন্ডের মহাকুমা ও থানা সদরগুলো মুক্তিবাহিনীর নিয়ন্ত্রণে চলে আসে। অধিকাংশ এলাকায় উড়ছে স্বাধীন বাংলাদেশের পতাকা। খুলনা শহরে পাকিস্তানি বাহিনীর ঘাঁটিগুলোতে বাংলাদেশের বিমান বাহিনীর বোমা হামলা করছে। যশোর সেনানিবাস থেকে সেনাবাহিনীকে নিয়ন্ত্রণ করা হত। সার্কিট হাউজে ছিল পাকিস্তানিদের সদর দপ্তর। স্বাধীনতার উষা লগ্নে পাকিস্তানি বাহিনীর স্থানীয় অধিনায়ক ছিলেন ব্রিগেডিয়ার হায়ত খান। পাকিস্তান বাহিনীর পক্ষে সামরিক কর্মকর্তাদের মধ্যে ছিল কর্ণেল ফজলে, কমান্ডার গুলজারিন খান, মেজর ইকবাল বাহার, লেঃ কর্ণেল শামস, মেজর বেলায়েত খান, মেজর ইসতিয়াক, মেজর জাফর, মেজর জুবলি।
পশ্চিম সেক্টরে ৪-৫ ডিসেম্বর টানা দুইদিন যৌথবাহিনীর আক্রমন প্রতিরোধ করার পর এদিন (৬ ডিসেম্বর) পাক ৯ ডিভিশন (জেনারেল আনসারি) যশোর ত্যাগ করার সিদ্ধান্ত নেয়। যশোর আক্রমনে মিত্র বাহিনীর ব্রিগেডিয়ার ঘোরিয়াও আহত হন। অবশ্য পাকিস্তানিরা যশোর ত্যাগ করলেও যৌথবাহিনী শহরে প্রবেশ করে ৭ তারিখে। এদিন যৌথবাহিনী পায়ে হেটে ঝিনাইদহ পৌঁছে এবং শহরটি মুক্ত করে।
এদিকে দিবসটি যথাযোগ্য মর্যাদায় উদযাপনের লক্ষ্যে জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ও জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে। কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে বিজয় র‌্যালি ও সভা ও সমবেত সঙ্গীত।


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ














ব্রেকিং নিউজ