খুলনা | সোমবার | ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২ পৌষ ১৪২৬ |

Shomoyer Khobor

শহরের পরিবেশ উন্নত ও স্যানিটেশনের নিশ্চয়তা পাবে নগরবাসী

বর্জ্য ব্যবস্থার উন্নয়নে কেসিসি’র ৩৩৮ কোটি ৫৬ লাখ টাকার গুরুত্বপূর্ণ প্রকল্প মন্ত্রণালয়ে

এস এম আমিনুল ইসলাম | প্রকাশিত ২১ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:৫০:০০

শহর এলাকার পরিবেশ উন্নত ও স্যানিটেশন ব্যবস্থার নিশ্চয়তার লক্ষে ৩শ’ ৩৮ কোটি ৫৬ লাখ টাকা ব্যয়ে অতি গুরুত্বপূর্ণ একটি প্রকল্প গ্রহণ করেছে খুলনা সিটি কর্পোরেশন (কেসিসি)। বর্তমান এ প্রকল্পের ডেভেলপমেন্ট প্রজেক্ট প্রপোজল (ডিপিপি) স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ে রয়েছে। প্রকল্পটি জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় শিগগির অনুমোদনের সম্ভাবনা রয়েছে। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, মহানগরী জন্য বর্তমানে প্রকল্পটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।  এটি বাস্তবায়ন হলে নগরীর সব ধরনের ওয়েস্ট দ্রুত ব্যবস্থাপনা, ময়ূর নদীসহ তৎসংলগ্ন খালের পানি প্রবাহ ঠিক রাখা, বর্জ্যরে জন্য কন্ট্রোল্ড ডাম্পিং ব্রিকুইটস বা চারকোল তৈরির মাধ্যমে জ্বালানী হিসেবে ব্যবহার করে রিইউজ করা সম্ভব হবে।
জানা গেছে, খুলনা সিটি কর্পোরেশন অধিক্ষেত্রে বর্জ্য ব্যবস্থাপনায় বিশৃঙ্খলা, ময়ূর নদীসহ ২২ খালের কচুরীপনা ও ভাসমান ময়লা-আবর্জনা জমে পানির প্রবাহ বাধাগ্রস্ত, ড্রেনে পেড়ি মাটি জমে জলাবদ্ধতা সৃষ্টিসহ নানা সমস্যা পরিলক্ষিত হচ্ছে। তাই এসব সমস্যা সমাধানে কর্পোরেশন ৩শ’ ৩৮ কোটি ৫৬ লাখ টাকা ব্যয়ে একটি প্রকল্প গ্রহণ করেছে। জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় অনুমোদনের লক্ষে ইতোমধ্যে এ প্রকল্পের ডেভেলপমেন্ট প্রজেক্ট প্রপোজল (ডিপিপি) মন্ত্রণালয়ে জমা দেয়া হয়েছে। প্রকল্পে রয়েছে ভূমি অধিগ্রহণ, এসটিএস নির্মাণ, ওয়েস্ট পরিবহনের জন্য কম্পাক্টর ট্রাক্টর ট্রাক বা রিফিউজ ৫টি, লংবুম এসকেভেটর ২টি, হুইল লোডার ১টি, ব্যাক হুইল লোডার ২টি, পানির গাড়ি ২টি, ওয়েব্রীজ ১টি, ৩ হুইলার অটো রিমোভার ৫টি ক্রয় এবং ময়ূর নদীসহ ২২ খালের ভাসমান ময়লা অপসারণের জন্য উইড হারভেস্টর ক্রয় ইত্যাদি।
কর্পোরেশনের নির্বাহী প্রকৌশলী (যান্ত্রিক) মোঃ আব্দুল আজিজ বলেন, ওয়েস্ট ম্যানেজমেন্ট প্রকল্পের ডেভেলপমেন্ট প্রজেক্ট প্রপোজল (ডিপিপি) একনেকে দ্রুতই অনুমোদন পাবে। কারণ নগরী খুলনার জন্য এ প্রকল্পের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। তার অভিমত ২০২৩ সালের জুনে প্রকল্পের বাস্তবায়ন কাজ শেষে হলে শহর এলাকায় পরিবেশ উন্নত হবে ও নগরবাসী স্যানিটেশনের নিশ্চয়তা পাবে। এছাড়া সেকেন্ডারী ট্রান্সফার স্টেশনে সলিড ওয়েস্ট ডাম্পিং ও যত্রতত্র ময়লা ফেলা কমিয়ে আনা এবং এসটিএস থেকে ময়লা দ্রুত ওয়েস্ট ব্যবস্থাপনায় আনা সম্ভব হবে। পাশাপাশি দ্রুত ওয়েস্ট লোড, পরিবহন, ডাম্পিং পয়েন্ট অপসারণ ও রাস্তা সংস্কারে প্রয়োজনীয় যন্ত্রপাতির সহায়তা নেয়া,ড্রেনের পেড়ী মাটি ব্যবস্থাপনা ও ভাসমান ময়লা নির্দিষ্ট স্থানে আটকানোর ব্যবস্থা করে সময় শ্রম ও অর্থ সাশ্রয় করা যাবে। এছাড়া ময়ূর নদীসহ ২২ খালে পানি প্রবাহ সচল রাখা, মানব বর্জ্যকে জ্বালানী হিসেবে চারকোল মাধ্যমে রিইউজ করা এবং শহর এলাকার পরিবশে উন্নত ও শহরবাসী স্যানিটেশনের নিশ্চয়তা পাবে।
 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ


বেসরকারি সোনালী জুট মিল বন্ধ ঘোষণা

বেসরকারি সোনালী জুট মিল বন্ধ ঘোষণা

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০১:৩০









মহান বিজয় দিবস আজ

মহান বিজয় দিবস আজ

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:৩৮



ব্রেকিং নিউজ


বেসরকারি সোনালী জুট মিল বন্ধ ঘোষণা

বেসরকারি সোনালী জুট মিল বন্ধ ঘোষণা

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০১:৩০







বিজয় দিবস ও আজকের মূল্যায়ন

বিজয় দিবস ও আজকের মূল্যায়ন

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০১:২১



বীরশ্রেষ্ঠ রুহুল আমীন আমাদের গর্ব

বীরশ্রেষ্ঠ রুহুল আমীন আমাদের গর্ব

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০১:১৬