খুলনা | শুক্রবার | ১৫ নভেম্বর ২০১৯ | ১ অগ্রাহায়ণ ১৪২৬ |

Shomoyer Khobor

শিক্ষামন্ত্রীর কাছে ছয় পাতার অভিযোগপত্র ও ৭০ পাতার নথি হস্তান্তর

জাবিতে চলছে আন্দোলন ব্যঙ্গচিত্রে ভিসির অনিয়ম!

খবর প্রতিবেদন | প্রকাশিত ০৯ নভেম্বর, ২০১৯ ০১:০৯:০০

ব্যঙ্গাত্মক উক্তি ও চিত্র অঙ্কিত ব্যানার নিয়ে উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলামের অপসারণ দাবিতে মিছিল করেছে দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাহাঙ্গীরনগরের আন্দোলনকারীরা। গতকাল শুক্রবার বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের পুরাতন প্রশাসনিক ভবনের সামনে থেকে মিছিলটি শুরু করেন আন্দোলনকারীরা।
শিক্ষার্থীরা বলছেন, ৬০ গজ লম্বা কাপড়ে ব্যঙ্গাত্মক চিত্রের মাধ্যমে অন্যায় ও দুর্নীতির বিরুদ্ধে তাদের প্রতিবাদের ভাষা প্রকাশ করা হয়েছে। চিত্রের মাধ্যমে উপাচার্যের দুর্নীতি, স্বেচ্ছাচারিতা, ছাত্রলীগ দ্বারা আন্দোলনকারীদের ওপর হামলাসহ সকল অনিয়ম তুলে ধরেন তারা। একই সাথে উপাচার্যের অপসারণ চাইছেন।
ব্যতিক্রমী এ কর্মসূচির ব্যাপারে আন্দোলনের অন্যতম সংগঠক ও ছাত্র ইউনিয়নের বিশ্ববিদ্যালয় সংসদের সভাপতি নজির আমিন চৌধুরী জয় বলেন, ‘ব্যঙ্গাত্মক চিত্র অঙ্কনের মাধ্যমে আমরা উপাচার্যের অনিয়ম স্বেচ্ছাচারিতা তুলে ধরেছি। এর আগে আমরা ৬০ গজ লম্বা কাপড়ে একইভাবে প্রতিবাদ জানিয়েছিলাম কিন্তু আমাদের সেই ক্যানভাসটি ছিড়ে ফেলা হয় যার প্রতিবাদে এবার ৬০ গজ কাপড়ে উপাচার্যের দুর্নীতি ও অনিয়ম তুলে ধরেছি।’
এর আগে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে পুরাতন প্রশাসনিক ভবনের সামনে জড়ো হতে শুরু করেন আন্দোলনকারীরা। এরপর পূর্ব ঘোষিত কর্মসূচি অনুযায়ী চিত্রাঙ্কন শুরু করা হয়। চিত্রাঙ্কন শেষে ব্যানারটি নিয়ে মিছিল শুরু করেন আন্দোলনকারীরা। মিছিলটি কলা ও মানবিক অনুষদে এসে শেষ হয় এবং সেখানে পরবর্তী কর্মসূচি নিয়ে ঠিক করতে বৈঠকে বসেন তারা।
এদিকে মিটিং শেষে শিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনে (ইউজিসি) উপাচার্যের বিরুদ্ধে দুর্নীতির তথ্য-উপাত্ত ই-মেইল করে জানিয়েছেন আন্দোলনকারীরা। 
এদিকে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে (জাবি) অধিকতর উন্নয়ন প্রকল্পে দুর্নীতির অভিযোগের নথি নিয়ে শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দীপু মনির কাছে করেছেন আন্দোলনকারীরা। শুক্রবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে ছয় পাতার অভিযোগপত্র ও ৭০ পাতার নথি শিক্ষামন্ত্রীর একান্ত সচিবের কাছে জমা দেন আন্দোলনকারী চার শিক্ষক।
উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসালামের অপসারণ দাবিতে চলমান আন্দোলনের মধ্যে উপাচার্যের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দিতে শিক্ষদেরকে আহ্বান জানিয়েছিলেন শিক্ষামন্ত্রী। সেই আহ্বানের প্রেক্ষিতে স্বশরীরে শিক্ষামন্ত্রীর কাছে অভিযোগ ও নথিপত্র দেয়ার জন্য দুইজন প্রতিনিধি পাঠানো হয়। এছাড়া ছয় পাতার অভিযোগপত্র ও ৭০ পাতার নথি শিক্ষামন্ত্রীর একান্ত সচিবের কাছে ই-মেইলযোগে পাঠানো হয়েছে।
এ বিষয়ে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী প্রগতিশীল শিক্ষক সমাজের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক খবির উদ্দিন বলেন, ছয় পাতার অভিযোগপত্র এবং সঙ্গে প্রায় ৭০ পাতার নথি সংযুক্ত করা হয়েছে। তার কাছেই এই অভিযোগসহ নথিগুলো জমা দেয়া হবে। সূত্র : যুগান্তর ও বার্তাটোয়েন্টিফোর।
 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ






পেঁয়াজের ঝাঁজ সংসদেও

পেঁয়াজের ঝাঁজ সংসদেও

১৫ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:৫৮



আবারও রেল দুর্ঘটনা

আবারও রেল দুর্ঘটনা

১৫ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:১৭





ব্রেকিং নিউজ