খুলনা | শুক্রবার | ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২৮ অগ্রাহায়ণ ১৪২৬ |

Shomoyer Khobor

দৌলতপুরের কলেজ ছাত্র শিবলু হত্যা মামলায় দু’আসামির যাবজ্জীবন : খালাস ১২

নিজস্ব প্রতিবেদক | প্রকাশিত ১০ অক্টোবর, ২০১৯ ০০:৪২:০০

দৌলতপুরের সরকারি বিএল কলেজের ছাত্র আব্দুল্লাহ আল ফয়সাল ওরফে শিবলু মোল্লা (২৭) কে ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে হত্যাকান্ডের মামলার দু’জন আসামিকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডাদেশ দিয়েছে আদালত। একই সাথে তাদেরকে ৫ হাজার টাকা করে জরিমানা অনাদায়ে আরও এক বছরের কারাদণ্ডাদেশ দেয়া হয়। মামলায় অভিযুক্ত ১২ জন আসামিকে বেকসুর খালাস দেয়া হয়েছে। গতকাল বুধবার খুলনার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারক মোঃ নজরুল ইসলাম হাওলাদার এ রায় ঘোষণা করেন।    
দণ্ডপ্রাপ্ত দু’জন হলেন দেয়ানা পূর্বপাড়া হাসপাতাল রোডের আমির আলী শেখের ছেলে আরিফ (২৮) ও রহমত (২২)। খালাসপ্রাপ্তরা হলেন দেয়ানা পূর্বপাড়া হাসপাতাল রোডের আমির আলী শেখের অপর ৮ ছেলে কাশেম (২৫), আবুল হোসেন (৪০), আবুল হাসান (৪০), আবু হানিফ (৩৬), পুলিশ কনেস্টবল মোঃ গোলাম মোস্তফা ওরফে বিপ্লব (৪৫), বাবু (২৫),  ইউসুফ (২৪) ও জসিম (৩২)। এছাড়া ইয়াহিয়া শরীফের ছেলে বাবু (২৫), আব্দুল হান্নানের ছেলে জুয়েল ওরফে কসাই জুয়েল (৩০), আব্দুল হামিদের দু’ছেলে মোঃ শহিদুল ইসলাম (৫০) ও এনামুল শেখ ওরফে ইমা (২৬)। 
মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পিবিআই পুলিশ পরিদর্শক শেখ আবু বকর অভিযোগপত্রে উল্লেখ করেন, ২০১৭ সালের ২০ জুন রাত সাড়ে ১০টার দিকে দেয়ানা উত্তরপাড়া হাসপাতাল মোড় এলাকায় নৃশংসভাবে কুপিয়ে হত্যা করা হয় শিবলুকে। সাক্ষী ও তদন্তে আসামিরা ঘটনার সাথে জড়িত বলে প্রাথমিকভাবে প্রমাণ পাওয়ায় তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র আদালতে দাখিল করা হয়েছে। চার্জশীটে এজাহারভুক্ত ১৪ জনের সবাইকে অভিযুক্ত করা হয়েছে। চার্জশীটে ৪২ জনকে সাক্ষী করা হয়েছে। ধারালো অস্ত্রের আঘাতে তার শরীর ছিন্ন ভিন্ন হয়ে যায়। এলাকায় বিরোধের কারণে কসাই আমিরের ছেলেরা শিবলুকে হত্যা করেছে বলে তদন্তে উঠে এসেছে। এই হত্যাকান্ডে এজাহারের ১৪ আসামির সবাই জড়িত ছিল বলেও তদন্ত কর্মকর্তার রিপোর্টে বলা হয়। 
উল্লেখ্য, ২০১৭ সালের ২০ জুন রাত সাড়ে ১০টায় দৌলতপুর দেয়ানা পূর্বপাড়া হাসপাতাল মোড় এলাকায় একটি বেঞ্চে বসে কোল্ড ড্রিঙ্কস খাচ্ছিলেন শিবলু। এমন সময় ধারালো অস্ত্রে সজ্জিত সন্ত্রাসীরা এসে তার সাথে বাক-বিতন্ডা করে। এক পর্যায়ে আটজন তাকে এলোপাতাড়ি ভাবে কোপায়। ১৪ জনের ঘাতক দলের বাকী ছয় সদস্য অস্ত্র হাতে শিবলুকে সে সময় ঘিরে রেখেছিল। মাথায়, ঘাড়ে, বুকে-পিঠে, হাত-পায়ে ধারালো অস্ত্রাঘাতে গুরুতর জখম অবস্থায় তাকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। নিহত শিবলু মোল্লা সাবেক কাউন্সিলর কবির হোসেন ওরফে কবু মোল্লার ভাইপো। এ ঘটনায় নিহতের পিতা মোঃ ফারুকুজ্জামান ওরফে বাবু মোল্লা বাদী হয়ে দৌলতপুর থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন (নং-২৭)। ২০১৮ সালের ৮ মার্চ মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পিবিআই পুলিশ পরিদর্শক শেখ আবু বকর ১৪ জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশীট দাখিল করেন।
মামলায় রাষ্ট্রপক্ষের কৌশুলী ছিলেন বিশেষ পিপি মোঃ আহাদুজ্জামান, আসামিপক্ষে ছিলেন এড. মোমরেজুল ইসলাম ও এড. চৌধুরী তৌহিদুর রহমান তুষার। 
 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ


বটিয়াঘাটার ওসি ও দুই এএসআই ক্লোজড

বটিয়াঘাটার ওসি ও দুই এএসআই ক্লোজড

১৩ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০১:২০




মহান বুদ্ধিজীবী দিবস কাল

মহান বুদ্ধিজীবী দিবস কাল

১৩ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০১:০২






ডুমুরিয়া মুক্ত দিবস আজ

ডুমুরিয়া মুক্ত দিবস আজ

১৩ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:৫৮


ব্রেকিং নিউজ


বটিয়াঘাটার ওসি ও দুই এএসআই ক্লোজড

বটিয়াঘাটার ওসি ও দুই এএসআই ক্লোজড

১৩ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০১:২০




মহান বুদ্ধিজীবী দিবস কাল

মহান বুদ্ধিজীবী দিবস কাল

১৩ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০১:০২






ডুমুরিয়া মুক্ত দিবস আজ

ডুমুরিয়া মুক্ত দিবস আজ

১৩ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:৫৮