খুলনা | সোমবার | ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২ পৌষ ১৪২৬ |

Shomoyer Khobor

জেলা প্রশাসককে স্মারকলিপি প্রদান নগর বিএনপি’র

দশ বছরে বিএনপি নেতা-কর্মীদের নামে দায়েরকৃত ১১০টি মামলা প্রত্যাহারের দাবি 

নিজস্ব প্রতিবেদক | প্রকাশিত ১২ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০০:৫০:০০

দশ বছরে বিএনপি নেতা-কর্মীদের নামে দায়েরকৃত ১১০টি মামলা প্রত্যাহারের দাবি 

গত দশ বছরে বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতা-কর্মীদের নামে দায়েরকৃত ১১০টি মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছে নগর বিএনপি। গতকাল বুধবার বেলা সাড়ে ১১টায় মহানগর বিএনপি’র সভাপতি নজরুল ইসলাম মঞ্জুর নেতৃত্বে জেলা প্রশাসক মোঃ হেলাল হোসেনের নিকট স্মারকলিপি প্রদান করা হয়।  
স্মারলিপিতে বলা হয়, অতি সম্প্রতি নগরীর ৮ থানায় বিগত মেয়র ও জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পূর্বে ও পরে ২০টি গায়েবিসহ ২৪টি নির্বাচনকালীন মোট ৪৪টি মামলায় চার্জশীট প্রদান করেছে। এ সকল মিথ্যা মামলার চার্জশীটসহ খুলনা বিএনপি ও অঙ্গ দলের নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধে গত দশ বছরে দায়েরকৃত ১১০টি মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের জোর দাবি জানাচ্ছি।   
এতে আরো বলা হয়, খুলনা সিটি মেয়র ও জাতীয় সংসদ নিবাচনে অংশ নেয় বিএনপি। ২০১৮ সালের ১৫ মে ও ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত নির্বাচনের সময় একই বছরে কেএমপির ৮ থানায় অর্ধশতাধিক মামলা দায়ের হয়। এর বেশির ভাগ মামলাই অত্যন্ত গোপনে অপরাধ সংগঠন ছাড়াই দায়ের করে রাখে। যা আমরা মাসাধিককাল জানা গেছে। মামলা করা হয়েছিলো একটি সুপরিকল্পিত লক্ষ্যকে সামনে রেখে তা হলো নির্বাচনে ভোট ডাকাতি করে সরকারি দলের প্রার্থীকে বিজয়ী করতে মাঠ পর্যায়ে নেতা-কর্মীদের এলাকা ছাড়া করা। এছাড়া নির্বাচন চলাকালীন নির্বাচন কমিশনের বিধি বিধান লংঘন করে বেশ কিছু মামলা করা হয়েছিল যা ছিলো নির্বাচনী আইনের পরিপন্থী। 
স্মারকে আরও বলা হয় ৪৪ গায়েবি ও মিথ্যা মামলায় মেয়র ও সংসদ নির্বাচনের প্রার্থী, খুলনা-৩ আসনের ধানের শীষের প্রার্থীর নির্বাচনী এজেন্ট, মহানগর বিএনপি’র সিনিয়র নেতৃবৃন্দ, সকল থানা ও ওয়ার্ড কাউন্সিলর, অঙ্গদলের মহানগর, থানা ও ওয়ার্ড পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ, মহিলাদল নেত্রী ও পুলিং এজেন্ট ট্রেনিং  প্রোগ্রামের ট্রেইনার, পুলিং এজেন্ট, নির্বাচন পরিচালনা কমিটির প্রধানগণ, এমন কি বিএনপি’র অভ্যন্তরীণ নির্বাচনী সম্ভাব্য প্রার্থী সার্ভে করতে আসা দুইজন সদস্যকে একটি আবাসিক হোটেল থেকে গ্রেফতার করে সরকারের বিরুদ্ধে কথিত ষড়যন্ত্রের অভিযোগে মামলা দিয়ে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। এছাড়া ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে ভোট কেন্দ্র ভিত্তিক কমিটি প্রধানদের আসামি করা হয়েছিলো। 
স্মারকলিপিতে বলা হয়, নির্বাচন কার্যক্রম চলাকালীন প্রত্যহ গ্রেফতার করা হয়েছিল, গ্রেফতার আতঙ্ক ছড়িয়ে ভীতি সঞ্চার করে নেতা-কর্মীদের এলাকা ছাড়া করা হয়েছিল। নির্বাচনের এক মাসে গ্রেফতার নেতা-কর্মীর সংখ্যা ছিলো এক হাজারেরও বেশী। ৪৪ মামলায় আসামির সংখ্যা দুই হাজারেরও বেশী। কয়েকটি মামলায় সংসদ নির্বাচনের পূর্বে দেড় মাসের মাথায় চার্জশীট দিয়ে ওয়ারেন্ট বের করে গ্রেফতার অভিযান চালানো হয়েছিল। সদর থানার একটি মামলা দাখিলের সময় আসামির সংখ্যা ছিল ২২ জন। আর সংসদ নির্বাচনের ভোট গ্রহণের ৭ দিন আগে সেই মামলায় ১৫৮ জনের নামে চার্জশীট প্রদান করা হয়েছিল, চার্জভুক্ত আসামিরা সকল ওয়ার্ডের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক। 
গত দেড় বছরে ৪৪ মামলায় হয়রানীর শিকার হয়ে সর্বশান্ত হয়েছে বিএনপি’র নেতা-কর্মীরা। অমানবিক জীবন যাপন করতে হয়েছে সকলকে, কারা নির্যাতন ভোগ করতে হয়েছে বিনা কারনে। অসুস্থ পিতা-মাতার চিকিৎসা বিহীন, সন্তানের লেখাপড়া হয়নি, সন্তান সম্ভবনা স্ত্রীর পাশে থাকতে পারেনি বিএনপি কর্মী, বাড়িতে বাজার নেই, ব্যবসা বাণিজ্য বন্ধ, প্রত্যেকটি বিএনপি পরিবার মানবেতর জীবন যাপন করছে। সরকারের প্রতি আমাদের আহ্বান একটি নিবন্ধিত রাজনৈতিক দল বিএনপি বাধাহীনভাবে রাজনীতি করার সাংবিধানিক সুযোগ দিন। বিএনপি’র বিরুদ্ধে দায়ের করা সকল মামলা প্রত্যাহার করুন। 
স্মারকলিপি প্রদান কর্মসূচিতে উপস্থিত ছিলেন শেখ মোশারফ হোসেন, জাফরউল্লাহ খান সাচ্চু, এড. বজুলর রহমান, শেখ ইকবাল হোসেন, শাহ্জালাল বাবলু, অধ্যক্ষ তারিকুল ইসলাম, সিরাজুল হক নান্নু, নজরুল ইসলাম বাবু, আসাদুজ্জামান মুরাদ, মেহেদী হাসান দীপু, শাহিনুর ইসলাম পাখী, আজিজুল হাসান দুলু, এড. গোলাম মওলা, জালু মিয়া, সাদিকুর রহমান সবুজ, শেখ সাদী, ইউসুফ হারুন মজনু, সাজ্জাদ আহসান পরাগ, সাজ্জাত হোসেন তোতন, মুর্শিদ কামাল, কেএম হুমায়ুন কবির, একরামুল হক হেলাল, হাসানুর রশিদ মিরাজ, শামসুজ্জামান চঞ্চল, মাহাবুব হাসান পিয়ারু, শরিফুল ইসলাম বাবু, নাজির উদ্দিন নান্নু, জামিরুল ইসলাম, রবিউল ইসলাম রবি, নেইমুল হাসান নেইম, মেহেদী মাসুদ সেন্টু, বাচ্চু মীর, মোস্তফা কামাল, কাজী মাহমুদ আলী, ময়েজউদ্দীন চুন্নু, মনিরুল ইসলাম। 
 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ


বেসরকারি সোনালী জুট মিল বন্ধ ঘোষণা

বেসরকারি সোনালী জুট মিল বন্ধ ঘোষণা

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০১:৩০









মহান বিজয় দিবস আজ

মহান বিজয় দিবস আজ

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:৩৮



ব্রেকিং নিউজ


বেসরকারি সোনালী জুট মিল বন্ধ ঘোষণা

বেসরকারি সোনালী জুট মিল বন্ধ ঘোষণা

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০১:৩০







বিজয় দিবস ও আজকের মূল্যায়ন

বিজয় দিবস ও আজকের মূল্যায়ন

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০১:২১



বীরশ্রেষ্ঠ রুহুল আমীন আমাদের গর্ব

বীরশ্রেষ্ঠ রুহুল আমীন আমাদের গর্ব

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০১:১৬