বটিয়াঘাটা থানার বিশেষ ক্ষমতা আইনের মামলায় দু’জনের জেল-জরিমানা



বটিয়াঘাটা থানার বিশেষ ক্ষমতা আইনের মামলার দু’আসামির প্রত্যেককে ২ বছর করে সশ্রম কারাদণ্ড, ৪ হাজার টাকা করে জরিমানা, অনাদায়ে আরো ২ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ডাদেশ দিয়েছে আদালত। গতকাল বুধবার খুলনার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ তৃত্বীয় আদালতের বিচারক বুশরা সাইয়েদা এ রায় ঘোষণা করেছেন। 
দণ্ডপ্রাপ্ত আসামিরা হলেন সাতক্ষীরা জেলা সদরের দক্ষিণ আলিপুর এলাকার আমজাদ হোসেনের ছেলে মোঃ ইমরান হোসেন (২০) ও একই এলাকার নাসির উদ্দিনের ছেলে মোঃ  ফরহাদ হোসেন (২৪)। রায় ঘোষণাকালে দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি ইমরান হোসেন আদালতের কাঠগড়ায় উপস্থিত ছিলেন এবং ফরহাদ হোসেন পলাতক রয়েছেন।   
আদালতের বেঞ্চ সহকারী শেখ সাইফুজ্জামান নথীর বরাত দিয়ে জানান, ২০১১ সালের ২২ অক্টোবর সকাল ১০টার দিকে খুলনা-সাতক্ষীরা মহাসড়কে অভিযান চালায় র‌্যাব-৬। এ সময় খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে থেকে ২৫ বোতল ফেন্সিডিলসহ ইমরান হোসেন ও ফরহাদ হোসেনকে গ্রেফতার করা হয়। এ ঘটনায় র‌্যাব-৬ এর ডিএডি মোঃ আফতাব উদ্দিন  
বাদী হয়ে বটিয়াঘাটা থানায় ইমরান ও ফরহাদের বিরুদ্ধে বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা দায়ের করেন যার নং-১৭। ওই বছরের ১০ ডিসেম্বর মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মোঃ জাহাঙ্গীর আলম আদালতে ইমরান ও ফরহাদকে অভিযুক্ত করে চার্জশীট দাখিল করেন। মামলায় রাষ্ট্রপক্ষের কৌশুলী ছিলেন অতিরিক্ত পিপি এড. এম এম সাজ্জাদ আলী ও সহকারী পিপি এড. ফালগুনী ইয়াসমিন মিতা। আসামিপক্ষে ছিলেন এড. সালেহা সুলতানা লিপি। 
 


footer logo

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত।

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।