খুলনা | শনিবার | ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯ | ৬ আশ্বিন ১৪২৬ |

Shomoyer Khobor

নিষেধাজ্ঞা উঠলেও নেতাদের মুক্তির খবর নেই সীমান্তে ফের গুলি, ভারতীয় সেনা নিহত

কাশ্মীরে গণগ্রেফতার : কারাগারে জায়গা নেই, বন্দীরা হোটেল-গেস্ট হাউজে!

খবর প্রতিবেদন | প্রকাশিত ১৮ অগাস্ট, ২০১৯ ০০:২৬:০০

জম্মু-কাশ্মীর থেকে সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ বাতিলকে কেন্দ্র করে প্রায় এক হাজার রাজনৈতিক নেতা-কর্মীকে গ্রেফতার করার পর তাঁদের আটক রাখার জায়গা পেতে হিমশিম খাচ্ছে প্রশাসন। উপত্যকার প্রশাসন এখন ব্যক্তিগত সম্পত্তি ভাড়া নিচ্ছে যাতে আটক ব্যক্তিদের সেখানে রাখা যায়।
ভারতীয় গণমাধ্যম ইন্ডিয়া টুডের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, শ্রীনগরের শের-ই-কাশ্মীর আন্তর্জাতিক কনভেনশন কেন্দ্রসহ বারামুল্লা ও গুরেজের কনভেনশন কেন্দ্রকে অস্থায়ী বন্দিশালা হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছে। এসব বন্দীশালায় অন্তত ৫৬০ জন রাজনৈতিক নেতা-কর্মীকে আটক রাখা হয়েছে বলে জানা গেছে।
ভারত সরকার জম্মু-কাশ্মীর বিষয়ে সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ বিলোপ করার ঘোষণা দেওয়ার আগে ৪ আগস্ট রবিবার গভীর রাতে কাশ্মীরের সাবেক দুই মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি ও ওমর আবদুল্লাহকে গৃহবন্দী করা হয়। এরপর ৫ আগস্ট ৩৭০ অনুচ্ছেদ রদের পর মেহবুবা মুফতি ও ওমর আবদুল্লাহকে গ্রেফতার করা হয়।
সূত্রের বরাত দিয়ে ইন্ডিয়া টুডে জানায়, অতীতে যেসব রাজনৈতিক কর্মী পাথর নিক্ষেপের ঘটনায় জড়িত ছিল তাদেরও পুলিশ গ্রেফতার করেছে। পাশাপাশি উপত্যকার পরিস্থিতি যাতে নিয়ন্ত্রণের বাইরে না যায়, সেজন্য আরো অনেক রাজনৈতিক কর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 
জম্মু-কাশ্মীর পুলিশের অতিরিক্ত মহাপরিচালক মুনির খান  জানান, জননিরাপত্তা আইনের (পিএসএ) আওতায় কয়েকজন ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে। সন্দেহভাজন কোনো ব্যক্তিকে কয়েক বছর কারাগারে আটকে রাখতে উপত্যকায় এই আইন ব্যবহার করা হয় বলে জানা গেছে। এক সংবাদ সম্মেলনে মুনির খান বলেন, ‘জননিরাপত্তা আইনের আওতায় কয়েকটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।  আমরা তা চাই না কারো প্রাণহানি হোক।’
এদিকে বিশেষ মর্যাদা বাতিলের জেরে টানা ১২ দিন পর কাশ্মীরের অবরুদ্ধ পরিস্থিতি কিছুটা শিথিল হয়েছে। কিছু কিছু এলাকায় টেলিফোন সেবা চালু হয়েছে। লোকজন চলাচলের নিষেধাজ্ঞাও উঠিয়ে নেওয়া হচ্ছে। তবে, সড়কে অতিরিক্ত নিরাপত্তা বহাল রয়েছে। গতকাল শনিবার সরকারের এক মুখপাত্রের বরাতে এ কথা জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদ মাধ্যমগুলো।
জানা যায়, কাশ্মীরের ৯৬টি টেলিফোন এক্সচেঞ্জের মধ্যে মোট ১৭টি ফের কাজ করতে শুরু করছে। এসব এলাকার প্রায় ৫০ হাজার ল্যান্ডলাইন ফোন এখন সচল। এ সংখ্যা ক্রমান্বয়ে বাড়ানো হবে বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ।
মুসলমান অধ্যুষিত কাশ্মীরের সড়কগুলোতে অতিরিক্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকছেই, রয়েছে ব্যারিকেডগুলোও। পরিচয়পত্র পরীক্ষার পরই স্থানীয়দের চলাচলের অনুমতি দেওয়া হচ্ছে।
সরকারের মুখপাত্র রোহিত কানসাল জানান, কাশ্মীরের প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলো আগামী সোমবার (১৯ আগস্ট) থেকে আবারও চালু হচ্ছে। ওইদিন থেকে সরকারি অফিসগুলোও পুরোদমে কার্যক্রম শুরু করবে। উপত্যকায় কিছু কিছু দোকানপাট খুললেও বেশিরভাগ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, ফুয়েল স্টেশন বন্ধ রয়েছে।
হিন্দু অধ্যুষিত জম্মু অঞ্চলের টেলিফোন-মোবাইল সেবা পুরোদমে চালু করে দেওয়া হয়েছে। সেখানকার পাঁচটি জেলায় ২জি মোবাইল ইন্টারনেট সেবাও পাওয়া যাচ্ছে।
নিষেধাজ্ঞা ধীরে ধীরে উঠিয়ে নেওয়া হলেও আটক কাশ্মীরি নেতারা কবে নাগাদ মুক্তি পাবেন, তার কোনো ঠিক নেই। এ বিষয়ে এক প্রশ্নের জবাবে রোহিত কানসাল জানান, আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করে তাদের মুক্তির বিষয়টি বিবেচনা করবে স্থানীয় কর্তৃপক্ষ।
সীমান্তে গুলি : কাশ্মীর সীমান্তে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে আবারও গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। এতে এক ভারতীয় সেনা নিহত হয়েছেন। শনিবার সকালে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। 
সশস্ত্র বাহিনীর এক মুখপাত্রের বরাতে ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস জানিয়েছে, জম্মু-কাশ্মীরের রাজৌরি জেলার নওশেরা সেক্টরের নিয়ন্ত্রণ রেখায় (লাইন অব কন্ট্রোল) অস্ত্রবিরতি লঙ্ঘন করে পাকিস্তানি সেনাবাহিনী গুলি ও মর্টার শেল ছুড়লে ভারতীয় বাহিনীর ল্যান্স নায়েক সন্দীপ থাপা (৩৫) গুরুতর আহত হন। তবে যে সৈন্য প্রাণ হারিয়েছেন, তিনি সন্দীপ থাপাই কি-না, সে বিষয়টি স্পষ্ট করা হয়নি ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে।
মুখপাত্র বলেন, সকাল সাড়ে ৬টার দিকে বিনা উসকানিতে গুলিবর্ষণ শুরু করে পাকিস্তানি বাহিনী। ভারতীয় সেনারাও এর কার্যকর ও সমুচিত জবাব দিয়েছে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত, সীমান্তে ভারত-পাকিস্তান গুলি বিনিময় চলছে। তবে, এতে পাকিস্তানি বাহিনীর কোনো সদস্য হতাহত হয়েছেন কি-না, তা এখনো জানা যায়নি।
এর আগে, গত বৃহস্পতিবার (১৫ আগস্ট) জম্মু-কাশ্মীরের উরি ও রাজৌরি সেক্টরে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে গুলি বিনিময়ে তিন পাকিস্তানি সেনা নিহত হন। এসময় পাকিস্তান পাঁচ ভারতীয় সেনাকে হত্যার দাবি করলেও তা অস্বীকার করে ভারত।


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ







ভারতে সুপার ইমার্জেন্সি  চলছে : মমতা

ভারতে সুপার ইমার্জেন্সি  চলছে : মমতা

১৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০০:২২







ব্রেকিং নিউজ











‘খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্যের আরো অবনতি’

‘খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্যের আরো অবনতি’

২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০০:৪৩