খুলনা | সোমবার | ১৯ অগাস্ট ২০১৯ | ৪ ভাদ্র ১৪২৬ |

শিরোনাম :
মোংলায় সাংগঠনিক তদন্তে এসে অভিযুক্তের সাথে ভ্রমণ ও ভুরিভোজ কেন্দ্রীয় বিএনপি নেতারডেঙ্গু আক্রান্ত ৫৩ হাজার, চিকিৎসা শেষে ফিরেছে ৪৫ হাজারবেসরকারি বিশ্ববিদ্যায়ের শিক্ষার্থী শিঞ্জন একদিনের রিমান্ডে অবরুদ্ধ কাশ্মীরে বাড়ছে নিরাপত্তা বাহিনীর নির্যাতন, চলছে বাছবিচারহীন গ্রেফতারখুলনায় প্রাধিকারপ্রাপ্ত সরকারি কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে গাড়ি ও ড্রাইভারের সুবিধা গ্রহণে অনিয়মের অভিযোগ!ফের নগরীর বেসরকারি বিশ্বদ্যিালয়ের বিবিএ’র ছাত্রীকে বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণের অভিযোগঈদযাত্রায় সড়কে গেছে ২২৪ প্রাণস্ত্রী পরিচয়ে কুয়াকাটাসহ নগরীর বিভিন্ন আবাসিক হোটেলে ওই ছাত্রীকে রেখেছিলো ‘শিঞ্জন রায়’

Shomoyer Khobor

দেশ, জাতি ও মুসলিম উম্মাহর শান্তি কামনা ত্যাগের মহিমায় পালিত ঈদুল আযহা

নিজস্ব প্রতিবেদক | প্রকাশিত ১৫ অগাস্ট, ২০১৯ ০০:৩০:০০

দেশজুড়ে গত সোমবার পালিত হেেয়ছ পবিত্র ঈদুল আযহা। এটি মুসলিম উম্মাহর অন্যতম বৃহত্তর ধর্মীয় উৎসব। মহান আল্লাহর অপার অনুগ্রহ লাভের আশায় এদিন মানুষ সামর্থ্য অনুযায়ী পশু কোরবানি করেন।
খুলনায় ঈদুল আযহার প্রথম ও প্রধান জামাত টাউন জামে মসজিদে সোমবার সকাল আটটায়, দ্বিতীয় ও শেষ জামাত নয়টায় অনুষ্ঠিত হয়। খুলনা সার্কিট হাউজ ময়দানে বৃষ্টির পানি জমে কর্দমাক্ত হয়ে পড়ার কারণে খুলনায় ঈদুল আযহার প্রথম ও প্রধান জামাত সার্কিট হাউজে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও তা বাতিল করা হয়। প্রধান জামাতের নামাজে ইমামতি করেন টাউন জামে মসজিদের ভারপ্রাপ্ত খতিব মাওলানা আবু দাউদ।
নামাজে অংশ নিতে সকাল থেকে বৃষ্টির মধ্যে মুসল্লিদের ঢল নামে টাউন জামে মসজিদে। ঈদের প্রধান জামাতে অংশ নিতে শহরের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে পায়জামা-পাঞ্জাবি পরিহিত মুসল্লিরা দলে দলে আসেন। প্রতিবারের মতো এবারও ঈদগাহে নেওয়া হয় কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থা। 
নামাজ শেষে দেশ, জাতি ও মুসলিম উম্মাহর শান্তি-অগ্রগতি ও সমৃদ্ধি কামনা করে বিশেষ মোনাজাত করা হয়। পরে মুসল্লিরা কোলাকুলি ও কুশলাদি বিনিময় করেন।
প্রধান জামাতে ঈদের নামাজ আদায়ের জন্য এক সারিতে দাঁড়ান খুলনার বিভাগীয় কমিশনার লোকমান হোসেন মিয়া, সাবেক সংসদ সদস্য নজরুল ইসলাম মঞ্জু, জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেনসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতা, প্রসাশনের কর্মকর্তা, ব্যবসায়ী-শিল্পপতিসহ নগরীর বিভিন্ন স্থান থেকে আসা সাধারণ মানুষ। 
নগরীতে ঈদের দ্বিতীয় ও শেষ জামাত অনুষ্ঠিত হয় খুলনা টাউন জামে মসজিদে সকাল ন’টায়। এছাড়া কোর্ট জামে মসজিদে সকাল সাড়ে আটটায় একটি জামাত অনুষ্ঠিত হয়। বায়তুন নুর জামে মসজিদে প্রথম জামাত ৮টায় ও দ্বিতীয় জামাত ৯টায়, ইসলামপুর জামে মসজিদে সকাল ৮টায়, সরকারি বিএল কলেজ জামে মসজিদে সকাল সাড়ে ৭টায়, মতি মসজিদে সকাল সাড়ে ৭টায়, মজিদিয়া খান জাহান নগর জামে মসজিদে সকাল সাড়ে ৭টায়, আল-হেরা জামে মসজিদে সকাল ৮টায়, ছোট মির্জাপুর রোড়ের সরদার জামে মসজিদে সকাল সাড়ে ৭টায়, বায়তুল ঈমান জামে মসজিদে সকাল ৭টায়, নিরালা জামে মসজিদে ৭টায়, মহেশ্বরপাশা পশ্চিমপাড়া মসজিদুল কোবায় সকাল সাড়ে ৭টায়, মসজিদে মিনার সাড়ে ৭টায়, ইকবাল নগর জামে মসজিদে সকাল সাড়ে ৭টায়, মৌলভীপাড়া বায়তুল আওয়াম জামে মসজিদে সকাল ৭টা ৪৫ মিনিটে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়।  
মহানগরীর বসুপাড়া ইসলামাবাদ কমিউনিটি সেন্টার ঈদগাহ, লায়ন্স স্কুল এ্যান্ড কলেজ ঈদগাহ মাঠ, খুলনা আলিয়া কামিল মাদ্রাসা, বায়তুন নুর জামে মসজিদ, রূপসা বায়তুশ শরফ জামে মসজিদ, পিটিআই জামে মসজিদ, কেডিএ নিরালা জামে মসজিদ, কাস্টমস ঘাট জামে মসজিদ, সিদ্দিকীয়া মাদ্রাসা, তালিমুল মিল¬াত মাদ্রাসা, দারুল উলুম মাদ্রাসা, আন্তঃজেলা বাস টার্মিনাল মসজিদ, সোনাডাঙ্গা আবাসিক এলাকার বায়তুল্লাহ জামে মসজিদ, নিরালা আবাসিক এলাকা ঈদগাহ, খানজাহান নগর খালাসী মাদ্রাসা ঈদগাহ, দৌলতপুর ঈদগাহ এবং খালিশপুর ঈদগাহ ময়দান, মসজিদে আমানাত, বাংলাদেশ ব্যাংক কোয়াটার জামে মসজিদে, তালাবওয়ালা জামে মসজিদে (দারুল উলুম মসজিদ), আরাফাত মসজিদে, আব্দুর রশীদ জামে মসজিদে, পূর্ব বানিয়া খামার কেন্দ্রীয় জামে মসজিদসহ খুলনা সিটি কর্পোরেশনের ৩১টি ওয়ার্ডে সিটি কর্পোরেশনের সহায়তায় ও ওয়ার্ড কাউন্সিলররার তত্ত্বাবধানে পৃথকভাবে সকাল ৭টা থেকে ৮টার মধ্যে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়।
অনুরূপভাবে ৯ উপজেলা ও দুইটি পৌরসভা এলাকার মসজিদগুলোতে সকাল ৭টা থেকে ৮টার মধ্যে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়।
খুলনা বিশ্বদ্যিালয় : পবিত্র ঈদ-উল আযহার নামাজের জামাত সকাল ৭টা ১০ মিনিটে বিশ্ববিদ্যালয়ের নির্মাণাধীন নতুন কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে অনুষ্ঠিত হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মোহাম্মাদ ফায়েক উজ্জামান, শিক্ষক, কর্মকর্তা, কর্মচারী, ছাত্ররা এবং আশপাশের এলাকাবাসী এখানে ঈদের নামাজ আদায় করেন। বিশ্ববিদ্যালয় মসজিদের সিনিয়র পেশ ইমাম হাফেজ মাওলানা আব্দুল কুদ্দুস উক্ত নামাজে ইমামতি করেন। জামাত শেষে বৃহত্তর বিশ্ব মুসলিম উম্মাহর শান্তি, বাংলাদেশের শান্তি ও সমৃদ্ধি এবং খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের অগ্রগতি কামনা করে দোয়া করা হয়। 
খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় : ঈদ-উল-আযহার জামাত সকাল সাড়ে ৭টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে অনুষ্ঠিত হয়েছে। ঈদের জামাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. কাজী সাজ্জাদ হোসেনসহ অন্যান্য শিক্ষক, কর্মকর্তা, কর্মচারী, শিক্ষার্থী, এলাকাবাসী উপস্থিত ছিলেন। 
 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ














ব্রেকিং নিউজ