খুলনা | বৃহস্পতিবার | ২১ নভেম্বর ২০১৯ | ৭ অগ্রাহায়ণ ১৪২৬ |

Shomoyer Khobor

জম্মুতে নিষেধাজ্ঞা বাতিল, কাশ্মীরে থাকবে আরও ‘কিছু সময়’

অবরুদ্ধ কাশ্মীরে বিষন্ন ঈদ 

খবর প্রতিবেদন | প্রকাশিত ১৫ অগাস্ট, ২০১৯ ০০:০৭:০০

ভারতের সংবিধানে কাশ্মীরকে দেয়া বিশেষ মর্যাদা তুলে নেওয়ার প্রতিক্রিয়ায় তুমুল বিক্ষোভের শঙ্কায় নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদের সতর্ক পাহারা আর মোড়ে মোড়ে কাঁটাতারের ঘেরাটোপে ঈদের দিনও শ্রীনগরের রাস্তাগুলো ছিল মরুভূমির মতোই নিষ্প্রাণ। আগের ঈদগুলোর আনন্দ, কোলাহলের বিপরীত চিত্র এখন কাশ্মীরিদের চোখে-মুখে; উদ্বিগ্ন, আতঙ্কিত, ক্ষুব্ধ। শঙ্কা, উদ্বেগ ও অস্বস্তির আবহে সন্ধ্যার মধ্যেই শহরটির বেশিরভাগ রাস্তাই একেবারে শুনশান হয়ে পড়ে বলে জানান প্রত্যক্ষদর্শীরা।
সপ্তাহখানেক আগে নরেন্দ্র মোদীর ভারতীয় জনতা পার্টি (বিজেপি) সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদে কাশ্মীরকে দেওয়া বৃহত্তর স্বায়ত্তশাসন প্রত্যাহার করে একে দ্বিখণ্ডিত করার সিদ্ধান্তের পর অবরুদ্ধ উপত্যকায় এবারের ঈদ হাজির হয়েছে এমন বিষণœ রূপেই।
বড় জমায়েতের ভয়ে সোমবার শ্রীনগরের বেশিরভাগ মসজিদেই ঈদের জামাত আয়োজনের অনুমতি দেয়া হয়নি বলে জানিয়েছে এনডিটিভি।
শুক্র ও শনিবার শহরটির অনেক এলাকা থেকে বেশকিছু বিধিনিষেধ তুলে নেওয়া হলেও সহিংসতার শঙ্কায় ঈদের আগের দিন রোববার সেগুলো পুনর্বহাল করা হয়েছিল।
কেন্দ্রীয় সরকারের সরবরাহ করা বিভিন্ন ছবিতে শ্রীনগরের আশপাশের ছোট মসজিদগুলোতেই স্থানীয়দের ঈদের নামাজ পড়তে দেখা গেছে।
আটক সাবেক দুই মুখ্যমন্ত্রী ওমর আবদুল্লাহ ও মেহবুবা মুফতিকেও কাছাকাছি মসজিদে নামাজ পড়ার অনুমতি দেয়া হয়েছে বলে কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।
ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি সিপিআইএমের সাধারণ সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরি ঈদে কাশ্মীরি জনগণকে ‘ঘরের মধ্যে আটকে’ রাখার তীব্র সমালোচনা করেছেন।
ভ্যানে করে এলপিজি গ্যাস সিলিন্ডার, হাঁস-মুরগির মাংস, ডিম ও সবজি বাড়ি বাড়ি সরবরাহের চেষ্টাও চলছে বলে জানিয়েছে প্রেস ট্রাস্ট অব ইন্ডিয়া। বিভিন্ন এলাকায় ঘুরে ঘুরে পুলিশ ভ্যানগুলোকে দোকান বন্ধ করে দ্রুত বাড়ি চলে যেতে নির্দেশ দিতে দেখা যায়।
এদিকে রাস্তার মোড়ে মোড়ে নিরাপত্তা বাহিনীর বিপুল সংখ্যক সদস্যের উপস্থিতির মধ্যেই ৭ দিন ধরে ভারতের অন্যান্য অংশ ও বহির্বিশ্বের সঙ্গে যোগাযোগবিচ্ছিন্ন ও অবরুদ্ধ কাশ্মীরের বাসিন্দারা উপত্যকায় ফের বিধিনিষেধ আরোপের প্রতিবাদে বিক্ষোভ দেখিয়েছি।
শিথিল : জম্মুতে ভারত সরকার কর্তৃক আরোপিত নিষেধাজ্ঞাগুলি পুরোপুরি সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। তবে কাশ্মীরে আরও ‘কিছু সময়ের জন্য’ ওই কড়া বিধিনিষেধ চলবে।
কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক পর্যায়ক্রমে নিষেধাজ্ঞাগুলি সরিয়ে নেওয়ার কথা বলার ঠিক একদিন পরেই এই ঘোষণা এলো। গতকাল বুধবার এমনটাই জানিয়েছেন সেখানকার এক ঊর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তা। তবে জম্মু ও কাশ্মীরের পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের মধ্যেই আছে জানিয়ে ওই পুলিশ কর্মকর্তা বলেন, এই থমথমে পরিস্থিতিতেও উপত্যকায় বড় কোনো ক্ষয়ক্ষতির ঘটনা ঘটেনি। 
জম্মু-কাশ্মীরের পুলিশের অধিকর্তা মুনির খান শ্রীনগরে এক সংবাদ সম্মেলনে ঘোষণা দেন, জম্মুতে আরোপিত নিষেধাজ্ঞাগুলি পুরোপুরি সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। তবে কাশ্মীরের কিছু জায়গায় এখনও কিছু সময়ের জন্য নিষেধাজ্ঞা অব্যাহত থাকবে। খবর এনডিটিভির।


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ


সারা ভারতে এনআরসি হবে : অমিত শাহ

সারা ভারতে এনআরসি হবে : অমিত শাহ

২১ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০












ব্রেকিং নিউজ