খুলনা | মঙ্গলবার | ১০ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২৫ অগ্রাহায়ণ ১৪২৬ |

Shomoyer Khobor

প্রিয়ার বিরুদ্ধে খুলনা যশোরসহ ৪ জেলায় রাষ্ট্রদ্রোহ মামলার ছয়টি আবেদন খারিজ

নিজস্ব প্রতিবেদক ও যশোর প্রতিনিধি | প্রকাশিত ২২ জুলাই, ২০১৯ ০০:৪৪:০০

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছে বাংলাদেশে সংখ্যালঘু নির্যাতন নিয়ে প্রিয়া সাহার অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে তার বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহের অভিযোগ এনে করা মামলা নেওয়ার ছয়টি আবেদন খারিজ হয়ে গেছে।
এদিকে খুলনার আদালতে রাষ্ট্রদ্রোহের অভিযোগে দু’টি মামলা দাখিলের পর তা খারিজ হয়ে গেছে। গতকাল রবিবার মহানগর হাকিম মোঃ আমিরুল ইসলাম শুনানী শেষে এ আদেশ  দেন। এই ধারার মামলা গ্রহণের জন্য স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অনুমতি প্রয়োজন সেক্ষেত্রে মামলা দু’টি খারিজ হয়েছে বলে নিশ্চিত করেন আদালতের বেঞ্চ সহকারী মোঃ মাসুদ। 
মামলার বাদিরা হলেন খুলনা জেলা আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ কামরুজ্জামান জামাল ও খুলনা নগরীর স্টেশন রোড এলাকার মৃত রাজেন্দ্রনাথ সাহার ছেলে মদন কুমার সাহা। মামলা দু’টির ফাইলিং আইনজীবীরা হলেন মোঃ শাহ আলম ও মোসাঃ শাম্মী আক্তার। 
যশোর : প্রিয়া সাহার বিরুদ্ধে নির্বাচিত সরকার উৎখাতের ষড়যন্ত্রের অভিযোগে দায়ের করা মামলা খারিজ করে দিয়েছে আদালত। যশোর সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আমলী আদালতের বিচারক গৌতম মল্লিক মামলাটি খারিজ করে দেন। আদালত আসামিকে রাষ্ট্র কর্তৃক আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দানের জন্য মামলাটি খারিজ করেছেন। এর আগে সকালে যশোর শহরের খড়কি এলাকার মৃত এলাহী সরদারের ছেলে এবং যশোর জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি গোলাম মোস্তফা কামাল বাদী হয়ে এ মামলাটি দায়ের করেন। মামলার আইনজীবী সৈয়দ কবীর হোসেন জনি জানান, সকালে অভিযোগ আমলে নিয়ে আদালত মামলাটি গ্রহণ করেন। দুপুরের পর বিচারক তার আদেশে মামলটি খারিজ করে দেন। তিনি বলেন, বিজ্ঞ আদালত আসামিকে রাষ্ট্র কর্তৃক আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দানের জন্য মামলাটি খারিজ করেছেন। 
অন্যদিকে রাষ্ট্রদ্রোহের মামলায় সরকারের অনুমতি এবং আনুষাঙ্গিক আরও প্রক্রিয়া অনুসরণ না করায় রবিবার ঢাকার দুই আদালত এবং ব্রাহ্মণবাড়িয়ার এক আদালত শুনানি শেষে মামলার আবেদন খারিজ করে দেন আদালত।
ঢাকার মহানগর হাকিম জিয়াউল হাসানের আদালতে একটি মামলার আবেদন করেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী সায়্যেদুল হক সুমন আর ঢাকার মহানগর হাকিম আবু সুফিয়ান মোঃ নোমানের আদালতে আরেকটি মামলার আবেদন করেন ঢাকা আইনজীবী সমিতির কার্যকরী পরিষদের সদস্য ইব্রাহিম খলিল।
এছাড়া ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে একই অভিযোগে একটি মামলার আবেদন করেন মোঃ আসাদ উল্লাহ্ নামের এক ব্যক্তি।
 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ














ব্রেকিং নিউজ