খুলনা | মঙ্গলবার | ২১ মে ২০১৯ | ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬ |

Shomoyer Khobor

নগরীর শিরোমনি ঘাটের  ইজারা নিয়ে উত্তেজনা

নিজস্ব প্রতিবেদক | প্রকাশিত ১৬ মে, ২০১৯ ০০:৫৮:০০

নগরীর শিরোমনি ঘাটের  ইজারা নিয়ে উত্তেজনা


নগরীর খানজাহান আলী থানা এলাকার আলোচিত শিরোমনি ঘাটের ইজারা নিয়ে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়েছে। গতকাল বুধবার দুপুরে বিআইডব্লিউটিএ আঞ্চলিক অফিসে ঘাটের ইজারা নিয়ে দুইপক্ষের মধ্যে উত্তেজনার সৃষ্টি হলে পুলিশ এসে ঘটনা নিয়ন্ত্রণে করেন।
জানা যায়, এ ঘাটটিতে শুল্ক আদায় ও হ্যান্ডলিং ঘাট নামে পরিচিত। বিভিন্ন স্থান থেকে আমদানি করা সার ও বিএডিসি’র পণ্য এই ঘাট দিয়ে খালাস হয়। ঘাটের পূর্বের ইজারাদার এস এম মনিরুজ্জামান প্রায় ৯ বছর ধরে ঘাটটি নিজ দখলে রাখেন। আদালতে মামলা করে তিনি ঘাটের নতুন ইজারা বন্ধ করে রাখেন। শ্রমিকরা জানান, ঘাটটি কাঁচা টাকার উৎস হিসেবে স্থানীয়দের কাছে পরিচিত। কারণ প্রতি মাসে লাখ লাখ টাকার লেনদেন হয় এই ঘাটে।
খুলনার নদী বন্দর ও পরিবহন বিভাগের উপ-পরিচালক  মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান সাংবাদিকদের জানান, ঘাটটি নতুন করে ইজারা দেয়ার জন্য দরপত্র আহ্বান করা হয়। এতে একমাত্র প্রতিষ্ঠান এলআর এন্টারপ্রাইজ গতকাল দরপত্র জমা দেয়। কিন্তু সানি এন্টারপ্রাইজ নামে অপর একটি প্রতিষ্ঠান নির্দিষ্ট সময়ের পরে দরপত্র জমা দিতে আসে। ওই দরপত্র জমা না নেওয়ায় তারা কিছুটা বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে। এতে হাতাহাতির ঘটনাও ঘটে। পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নেয়। ঘাট এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে।


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ














ব্রেকিং নিউজ










যাকাত গরিবের হক

যাকাত গরিবের হক

২১ মে, ২০১৯ ০০:৫২