খুলনা | সোমবার | ২২ জুলাই ২০১৯ | ৬ শ্রাবণ ১৪২৬ |

শিরোনাম :
খুলনায় ডেঙ্গু ও চিকনগুনিয়া জ্বরে আক্রান্ত ২১ রোগী শনাক্তপ্রিয়ার বিরুদ্ধে খুলনা যশোরসহ ৪ জেলায় রাষ্ট্রদ্রোহ মামলার ছয়টি আবেদন খারিজযশোরসহ ৪ জেলার মাত্র একজন বিচারকের হাতে ১৭শ’ ৭০ মামলা : স্টাফ মাত্র দু’জনখুলনার বৃক্ষমেলায় দর্শনার্থীদের নজর কেড়েছে এ্যাডেনিয়াম ফুল গাছ‘আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগের আগে আইনানুগ ব্যবস্থা না নেওয়ার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর’প্লাটিনাম জুট মিলের চারটি ভবন পরিত্যক্ত ঘোষণা জীবনের ঝুঁকিতে শ্রমিক পরিবারের সদস্যরারাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক কূটনীতি একসঙ্গে অনুসরণ করুন : রাষ্ট্রদূতদের প্রধানমন্ত্রীপ্রি-একনেকে অনুমোদনের পর কেটেছে ১০ মাস, একনেকে ওঠেনি শের-এ বাংলা রোড চার লেনে উন্নীতকরণ প্রকল্প

Shomoyer Khobor

১৫ এপ্রিল মাঠে গড়াচ্ছে খুলনা সিনিয়র ডিভিশন ক্রিকেট লীগ

আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরুর অপেক্ষায় খুলনা জেলা স্টেডিয়াম

আব্দুল্লাহ এম রুবেল | প্রকাশিত ১৩ এপ্রিল, ২০১৯ ০১:২২:০০

অবশেষে খুলনার ক্রীড়া প্রেমীদের দীর্ঘদিনের খেলা না হওয়ার দুঃখ দূর হতে যাচ্ছে। মাঠ সংস্কারসহ সব ধরনের কাজ শেষে এখন খেলা গড়ানোর অপেক্ষায় খুলনা জেলা স্টেডিয়াম। চার বছরেরও বেশী সময় পরে আবারও খেলাধুলা হতে যাচ্ছে এ স্টেডিয়ামে। সোয়া ১১ কোটি টাকা ব্যয়ে পুনঃনির্মিত খুলনা জেলা স্টেডিয়ামের আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু হতে যাচ্ছে আগামী ১৫ এপ্রিল থেকে। ওইদিন থেকে এ স্টেডিয়ামে শুরু হবে খুলনা সিনিয়র ডিভিশন ক্রিকেট লীগ। লীগের উদ্বোধনের সাথে ওই দিন স্টেডিয়ামের মাঠেরও আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন হবে। মাঠ তৈরিতে এখন চলছে শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি। নতুন করে যাত্রা শুরুর পর এই স্টেডিয়ামকে ঘিরে ক্রীড়াঙ্গনে আবারও প্রাণ চাঞ্চল্য ফিরে আসবে এমনটাই প্রত্যাশা ক্রীড়াপ্রেমী মানুষের। 
অবকাঠামো নষ্ট হয়ে যাওয়ায় দীর্ঘদিনের পরিত্যক্ত খুলনা জেলা স্টেডিয়াম ভেঙে ফেলা হয় ২০১৪ সালে। জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ ওই বছরই স্টেডিয়াম নির্মাণ কাজ শুরু করে। এ কাজে মোট ১১ কোটি ১৪ লাখ টাকা বরাদ্দ হয়। এ বরাদ্দ ব্যয়ে স্টেডিয়ামের ৬০০ ফুট গ্যালারি ও প্যাভিলিয়ান ভবন নির্মাণ করে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ। একই বরাদ্দে মাঠ সংস্কারের কথা থাকলেও জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের নিয়োগকৃত ঠিকাদার মাঠ সংস্কার করেনি। পরে খুলনা জেলা ক্রীড়া সংস্থা নিজস্ব অর্থায়নে এ মাঠ সংস্কার করে। 
তবে জেলা স্টেডিয়াম পুনঃনির্মাণের এ গল্পটা এতটা মসৃন ছিলো না। পথে পথে বাধা পেরিয়ে স্টেডিয়াম এখন খেলার উপযোগী। ২০১৪ সালে জেলা স্টেডিয়াম ভেঙে ফেলা হয়। যা ২০১৬ সালের মধ্যে নতুন করে তৈরি করার কথা ছিল। কিন্তু সে কাজ শেষ হয় ২০১৭ সালে। মাঠ সংস্কার না করে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান চলে যাওয়ায় জেলা স্টেডিয়াম নিয়ে তৈরি হয় নতুন জটিলতা। পরবর্তীতে খুলনা সিটি কর্পোরেশনের সহায়তায় ও নিজস্ব অর্থায়নে এই মাঠ তৈরি করে জেলা ক্রীড়া সংস্থা। মাঠ তৈরিতে সাহায্যের হাত বাড়িয়েছিল বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডও (বিসিবি)। বিসিবি জেলা স্টেডিয়ামে দু’টি উইকেট তৈরি করে দেয়। 
জেলা স্টেডিয়ামের মাঠ সংস্কার কমিটির সম্পাদক সুজন আহমেদ মাঠ সংস্কারের কাজ সম্পন্ন করে খেলার উপযোগী করতে পারায় সন্তোষ প্রকাশ করেছেন। তিনি বলেন, দীর্ঘদিন খুলনায় কোন খেলা নেই। এটা নিয়ে সাধারণ মানুষের ক্ষোভ রয়েছে। আমাদেরও সর্বোচ্চ চেষ্টা ছিলো যত দ্রুত সম্ভব মাঠ রেডি করা। আবহাওয়া সমস্যা ছাড়াও বিভিন্ন ইস্যুতে কয়েক দফা বাধাগ্রস্ত হয়েছে স্টেডিয়ামের মাঠ সংস্কার কাজ। তবে এখন মাঠ খেলার জন্য পুরোপুরি প্রস্তুত। তিনি বলেন, জেলা স্টেডিয়াম আবারও তার হারানো জৌলুস ফিরে যাবে। খুলনার ক্রীড়াঙ্গনে আবারও প্রাণচাঞ্চল্য ফিরে আসবে। 
খুলনা সিনিয়র ডিভিশন লীগ কমিটির সম্পাদক শেখ হেমায়েত উল্লাহ বলেন, আবারও খুলনায় ক্রিকেট লীগ শুরু হচ্ছে। নানা প্রতিকুলতা কাটিয়ে সবার অংশগ্রহণে জমজমাট একটি লীগ হবে বলেও তিনি প্রত্যাশা করেন। ক্রিকেটাররা এখন খেলার জন্য উন্মুখ হয়ে আছে। উৎসবমুখর একটা পরিবেশ সৃষ্টি হবে এ খেলাকে কেন্দ্র করে। আর একবার খেলা শুরু হলে এটা ধারাবাহিকতাও বজায় থাকবে। 
জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক কাজী শামীম আহসান বলেন, স্টেডিয়াম, মাঠ সবই এখন খেলার জন্য প্রস্তুত। বেশ কয়েক বছর খেলা আয়োজন করতে পারিনি। মাঠ সমস্যাসহ নানা প্রতিকুলতা ছিলো ক্রিকেট লীগ আয়োজনে। তিনি ক্লাবগুলোকে সাধুবাদ জানিয়েছেন স্বতঃস্ফূর্তভাবে লীগে অংশ গ্রহণের জন্য। তিনিও প্রত্যাশা করেন, যে খেলা আগামী ১৫ এপ্রিল থেকে শুরু হচ্ছে, সেটা তার ধারাবাহিকতা ধরে রাখবে। আর এর মাধ্যমে খুলনার ক্রিকেটসহ খেলাধুলার সার্বিক উন্নতি হবে। ত্রীড়াঙ্গনে খুলনার যে সুনাম সেটাও আবার ফিরে পাবে। 
উল্লেখ্য, সিনিয়র ডিভিশন ক্রিকেট খুলনার সব থেকে বড় ক্রিকেট আয়োজন। এ লীগের মধ্যে দিয়ে মাঠের যাত্রা শুরু হচ্ছে। এখানে প্রিমিয়ার ডিভিশনে ৮টি ও প্রথম বিভাগে ৮টি দল অংশ গ্রহণ করে। আগামী ১৫ এপ্রিল মাঠ ও লীগ উদ্বোধনের দিনে সর্বশেষ মৌসুমের চ্যাম্পিয়ন পঞ্চবীথি ক্রীড়া চক্র মুখোমুখি হবে সর্বশেষ আসরে প্রথম বিভাগ থেকে প্রিমিয়ারে উঠে আসা রেড সান ক্লাবের। 
 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ














ব্রেকিং নিউজ