খুলনা | মঙ্গলবার | ২২ জানুয়ারী ২০১৯ | ৯ মাঘ ১৪২৫ |

Shomoyer Khobor

বাগেরহাটে শিক্ষক সমিতির প্রশ্ন বাণিজ্য বন্ধের উপক্রম

আরিফ উজ্জামান, সিএন্ডবি বাজার  | প্রকাশিত ০৩ জুলাই, ২০১৮ ০১:৪৭:০০

বাগেরহাটে শিক্ষক সমিতির প্রশ্ন বাণিজ্য বন্ধের উপক্রম

যশোর শিক্ষাবোর্ডের অন-লাইন প্রশ্নপত্রে একযোগে বোর্ডের আওতাধীন সকল বিদ্যালয়ে অর্ধ-বার্ষিক ও প্রাক-নির্বাচনী পরীক্ষা গ্রহণ করায় সারাদেশে ব্যাপক সাড়া পড়েছে। এর ফলে বাগেরহাটে শিক্ষক সমিতির প্রশ্ন বাণিজ্য বন্ধের উপক্রম হয়েছে।
সংশ্লিষ্ট সূত্রটি জানায়, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা মতে মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সকল পরীক্ষায় শিক্ষকদের তৈরিকৃত প্রশ্নে পরীক্ষা নেবার কথা থাকলেও অধিকাংশ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সমিতির প্রশ্নে পরীক্ষা গ্রহণ করে আসছিল। এছাড়া বাণিজ্যিক ভিত্তিতে তৈরিকৃত সমিতির প্রশ্নে অনেক ক্ষেত্রে ভুল থাকে। সিলেবাস অনুসরণ করা হয় না। গাইড থেকে সরাসরি প্রশ্ন তুলে দেয়া হতো। হাতে গোনা কয়েকটি স্কুল নিজস্ব তৈরিকৃত প্রশ্নে পরীক্ষা নিতো। অনেক ক্ষেত্রে প্রশ্নপত্র ফাঁসের ঘটনা ঘটে থাকতো। অবশেষে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, যশোর অন-লাইন প্রশ্নপত্র প্রণয়নের কথা ভাবে এবং ২১ জুন, বোর্ড বাস্তবায়ন করে। ২০১৫ সালের ‘প্রশ্নব্যাংক’- এর আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম শুরু হলেও ২০১৬ সাল থেকে পরীক্ষামূলক ভাবে এটি চালু করা হয়। 
১ জুলাই হতে একযোগে বোর্ডের আওতাধীন সকল বিদ্যালয়ে অর্ধ-বার্ষিক ও প্রাক-নির্বাচনী পরীক্ষা শুরু হয়েছে। ৮ম-১০ম শ্রেণীর অধিকাংশ বিষয়ের প্রশ্ন এবং ৬ষ্ঠ-৭ম শ্রেণীর গণিত ও ইংরোজি বিষয়ের প্রশ্ন বোর্ডের অন-লাইন প্রশ্নব্যাংক  থেকে ডাউনলোড করে পরীক্ষা নিতে হচ্ছে। অবশিষ্ট হাতে গোনা কয়েকটি বিষয়ের প্রশ্ন অধিকাংশ সমিতি সরবরাহ করতে আগ্রহী নয়। ফলে স্ব-স্ব বিদ্যালয় বাকি বিষয়গুলির প্রশ্ন তৈরি করে পরীক্ষা গ্রহণ করছে। মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, যশোর এর ওয়েবসাইডে এ সংক্রান্ত একাধিক নোটিশ জারি করা হয়েছে। শিক্ষা বোর্ডের পরীক্ষা বিভাগ থেকে জানা যায়, সকল শিক্ষকদের বিষয়ভিত্তিক প্রশ্ন প্রনয়ন করে আপলোড করার নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। এতে শিক্ষকদের মধ্যে প্রশ্ন প্রণয়নের দক্ষতা বৃদ্ধি পাচ্ছে। পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবার একদিন আগে শিক্ষকদের  তৈরিকৃত প্রশ্নের মধ্য থেকে প্রশ্ন বাছাই করে একটি পূর্ণাঙ্গ প্রশ্নপত্র তৈরি করা হয়। এতে প্রশ্ন ফাঁসের কোন সম্ভাবনা থাকে না।  বাগেরহাট উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মাছুদা আক্তার এ প্রতিনিধিকে জানান, বোর্ডের সরবরাহকৃত প্রশ্নে শিক্ষার্থীরা পরীক্ষা দিতে সাবলীল বোধ করছে এবং শিক্ষার্থীরা বোর্ডের প্রশ্নে পরীক্ষা দিতে অভ্যস্ত হচ্ছে। 
বাগেরহাট জেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ কামরুজ্জামান জানান, যশোর শিক্ষা বোর্ড একযোগে অভিন্ন প্রশ্নের মাধ্যমে পরীক্ষা গ্রহণের যে পদক্ষেপ নিয়েছে তা’ সময়োপযোগী ও  প্রশ্ন ফাঁস রোধে এক কার্যকরী উদ্যোগ। এ উদ্যোগ যাতে কোনক্রমে ব্যাহত না হয় সে জন্য সকলকে সচেতন হতে হবে।
 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ



১৯৭১ সালের এক ভয়াল রাত

১৯৭১ সালের এক ভয়াল রাত

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:১০

বাংলাদেশ

বাংলাদেশ

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:১০



এক বীরের বুকভরা বেদনা

এক বীরের বুকভরা বেদনা

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:১০

খুলনা বিজয়ের রথে

খুলনা বিজয়ের রথে

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:১০

গুরুদাসী : এক বীরাঙ্গণা নারী

গুরুদাসী : এক বীরাঙ্গণা নারী

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:১০

শপথ

শপথ

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:১০

এইতো মোদের স্বাধীনতা

এইতো মোদের স্বাধীনতা

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:১০

অভূতপূর্ব ইতিহাস

অভূতপূর্ব ইতিহাস

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:১০


ব্রেকিং নিউজ