খুলনা | বুধবার | ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮ | ১১ আশ্বিন ১৪২৫ |

Shomoyer Khobor

নগর ও জেলা বিএনপি’র পৃথক মানববন্ধনে বক্তারা

খালেদা জিয়াকে জেলে রেখে দেশে কোন গণতান্ত্রিক পন্থার নির্বাচন হতে পারে না

নিজস্ব প্রতিবেদক | প্রকাশিত ১১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:৫৭:০০

খালেদা জিয়াকে জেলে রেখে দেশে কোন গণতান্ত্রিক পন্থার নির্বাচন হতে পারে না


খুলনায় পৃথক মানববন্ধনে বিএনপি নেতারা হুঁশিয়ারী উচ্চারণ করে বলেছেন, মাদার অব ডেমোক্রেসি বেগম খালেদা জিয়াকে জেলে রেখে দেশে কোন গণতান্ত্রিক পন্থার নির্বাচন হতে পারে না। সেটি হবে অবৈধভাবে দখল করা ক্ষমতাকে দীর্ঘায়িত করার চক্রান্ত। বক্তারা অভিযোগ করেন শেখ হাসিনা ক্ষমতার জন্য মরিয়া হয়ে উঠেছে বলেই, কারাগারে আটকে রেখে বিনা চিকিৎসায় বেগম খালেদা জিয়াকে হত্যার নীল নকশা তৈরি করছে। এ সরকরের পতন ঘন্টা বেজে গেছে এমন মন্তব্য করে বক্তারা বলেন, র‌্যাব-পুলিশ-ডিবি লেলিয়ে দিয়ে গুম-খুন-মিথ্যা মামলায় গণগ্রেফতার করে তাদের শেষ রক্ষা হবে না।
বিএনপি’র চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি ও সুচিকিৎসার দাবিতে গতকাল সোমবার বেলা সোয়া ১১টায় কেডি ঘোষ রোডে দলীয় কার্যালয়ের সামনে নগর ও জেলা বিএনপি আয়োজিত পৃথক মানববন্ধনে বক্তারা এসব কথা বলেন। 
বক্তারা আরো বলেন, বেগম খালেদা জিয়ার ভাগ্য আদালতের ওপর নয়, শেখ হাসিনার মর্জির ওপর নির্ভরশীল বলে মনে হচ্ছে। মিথ্যা মামলায় কারাগারে বন্দী গুরুতর অসুস্থ সাবেক প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে মন্ত্রীদের তাচ্ছিল্যপূর্ণ মন্তব্য প্রমাণ করে সরকার তাকে তিলে তিলে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দিতে চায়। এটি প্রতিহিংসার রাজনীতির চূড়ান্ত বহিঃপ্রকাশ। নির্বাচন যতো ঘনিয়ে আসবে সরকার তার নির্মমতার বিভৎস কুৎসিত রূপ প্রকাশ করবে বলে আশঙ্কা করেন বক্তারা। 
তারা বলেন, সারাদেশে ব্যাপক হারে গণগ্রেফতার অভিযান শুরু করেছে পুলিশ। বিএনপি’র নেতা-কর্মীদের বাড়িতে বাড়িতে তল্লাশি অভিযান চালানো হচ্ছে। ককটেল, পেট্রোল বোমা আর নাশকতার কথিত মামলার হিড়িক পড়েছে সারা দেশের থানায় থানায়। পুলিশ-প্রশাসনকে যতোই জনমতকে দমনে ব্যবহার করা হোক, সরকারের শেষ রক্ষা হবে না বলে মন্তব্য করেন বক্তারা। 
নগর বিএনপি : গতকাল বেলা ১১টায় দলীয় কার্যালয়ের সামনে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে সভাপতিত্ব করেন দলের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও নগর সভাপতি নজরুল ইসলাম মঞ্জু। বিএনপি নেতা অধ্যাপক আরিফুজ্জামান অপু’র পরিচালনায় কর্মসূচিতে বক্তৃতা করেন নগর সাধারণ সম্পাদক ও সিটি মেয়র মনিরুজ্জামান মনি, কাজী সেকেন্দার আলী ডালিম, মীর কায়সেদ আলী, মোল্লা আবুল কাশেম, জাফরউল্লাহ খান সাচ্চু, জলিল খান কালাম, শাহজালাল বাবলু, স ম আব্দুর রহমান, অধ্যক্ষ তারিকুল ইসলাম, ফখরুল আলম, শেখ আমজাদ হোসেন, সিরাজুল হক নান্নু, নজরুল ইসলাম বাবু, আসাদুজ্জামান মুরাদ, মহিবুজ্জামান কচি, মেহেদী হাসান দীপু, শফিকুল আলম তুহিন, আজিজুল হাসান দুলু, মুজিবর রহমান, সাদিকুর রহমান সবুজ, জালু মিয়া, এহতেশামুল হক শাওন, শেখ সাদী, ইউসুফ হারুন মজনু, মুর্শিদ কামাল, মাসুদ পারভেজ বাবু, একরামুল হক হেলাল, রবিউল ইসলাম রবি, শরিফুল ইসলাম বাবু, নিয়াজ আহমেদ তুহিন, নাজিরউদ্দিন আহমেদ নান্নু, হাসান মেহেদী রিজভী, শমসের আলী মিন্টু, মহিউদ্দিন টারজান, ওয়াহিদুর রহমান দীপু, প্রমুখ। ঘন্টাব্যাপি চলা এ কর্মসূচিতে যোগ দিতে নগরীর বিভিন্ন ওয়ার্ড ও থানা থেকে বিএনপি ও অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মীদের খন্ড খন্ড মিছিল কর্মসূচিস্থলে এসে হাজির হয়।  
জেলা বিএনপি : সকাল ১০টায় দলীয় কার্যালয়ের সামনে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে সভাপতিত্ব করেন দলের জেলা সভাপতি এড. এস এম শফিকুল আলম মনা। কর্মসূচিতে উপস্থিত ছিলেন ও বক্তৃতা করেন আমীর এজাজ খান, খান জুলফিকার আলী জুলু, কামরুজ্জামান টুকু, চৌধুরী কওসার আলী, খান আলী মুনসুর, মেজবাউল আলম, সাইফুর রহমান মিন্টু, এড. মাসুম আল রশিদ, মোল্লা খায়রুল ইসলাম, আব্দুর রকিব মল্লিক, এস এ রহমান বাবুল, মোস্তফা উল বারী লাভলু, এড. শহিদুল আলম, শামসুল আলম পিন্টু, মুর্শিদুর রহমান লিটন, ওয়াহিদুজ্জামান রানা, শামীম কবির, তৈয়েবুর রহমান, উজ্জল কুমার সাহা, আতাউর রহমান রনু, গোলাম মোস্তফা তুহিন, সরফরাজ হিরো, শেখ হাফিজুর রহমান, খায়রুল ইসলাম জনি, মোল্লা সাইফুর রহমান, নুরুল আমীন বাবুল, খন্দকার ফারুক হোসেন, মোজাফ্ফর হোসেন, মিরাজুর রহমান মিরাজ, কামরুল ইসলাম সিপার, সাইফুল হাসান রবি, মনিরুজ্জামান বেল্টু, জাফরী নেওয়াজ চন্দন, অধ্যাপক আইয়ুব আলী, কাজী ওয়াইজউদ্দিন সান্টু, রফিকুল ইসলাম বাবু, জসিম উদ্দিন লাবু, শামসুল বারিক পান্না, এড. আলফাজ হোসেন, এড. মাসুদ করিম, রাহাত আলী লাচ্চু প্রমুখ। 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ














ব্রেকিং নিউজ












তৃতীয় ফাইনাল নাকি স্বপ্ন ভঙ্গ

তৃতীয় ফাইনাল নাকি স্বপ্ন ভঙ্গ

২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:৫৫