খুলনা | শুক্রবার | ১৭ অগাস্ট ২০১৮ | ২ ভাদ্র ১৪২৫ |

Shomoyer Khobor

মনোনয়নপত্র জমা ২৮ জুনের মধ্যে 

রাজশাহী, বরিশাল ও সিলেট  সিটিতে ভোট ৩০ জুলাই  

খবর প্রতিবেদন | প্রকাশিত ১৪ জুন, ২০১৮ ০০:০৪:০০

রাজশাহী, বরিশাল ও সিলেট সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করেছে নির্বাচন কমিশন। আগামী ৩০ জুলাই অনুষ্ঠেয় এই নির্বাচনে অংশ নিতে প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র জমা দেওয়া যাবে ২৮ জুন পর্যন্ত। বুধবার দুপুরে নির্বাচন কমিশনের (ইসি) সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ এই তফসিল ঘোষণা করেন। 
এর আগে গত ২৯ মে প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নূরুল হুদা এই নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করলেও ১৩ জুন প্রজ্ঞাপন জারির মাধ্যমে তফসিল কার্যকর হবে বলে জানিয়েছিলেন। ইসি সচিবের মৌখিক তফসিল ঘোষণার সঙ্গে সঙ্গে ইসি সচিবালয়ের যুগ্ম-সচিব মিজানুর রহমান স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। এই সিদ্ধান্ত আগে নেওয়া হলেও বুধবার ইসি আনুষ্ঠানিকভাবে এই তিন সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করে।
তফসিল অনুযায়ী, ২৮ জুন রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন। মনোনয়ন বাছাইয়ের তারিখ ১-২ জুলাই। প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ৯ জুলাই। এরপর ভোট ৩০ জুলাই। এই তিন সিটির আগে ২৬ জুন গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে ভোটগ্রহণ হবে। গত ১৫ মে খুলনা সিটির সঙ্গে গাজীপুরে ভোট হওয়ার কথা থাকলেও আদালতের আদেশে তা আটকে গিয়েছিল। 
খুলনা ও গাজীপুরের মতো রাজশাহী, বরিশাল ও সিলেটেও আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তাকে সংশ্লিষ্ট সিটি নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা করা হয়েছে। এই সিটি নির্বাচনের পর চলতি বছরের ৩০ অক্টোবর থেকে ২৮ জানুয়ারির মধ্যে সংসদ নির্বাচন করতে হবে ইসিকে।    
ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী তিন সিটির মেয়র, সংরক্ষিত আসন ও সাধারণ আসনের কাউন্সিলরদের মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ সময় ২৮ জুন। রিটার্নিং অফিসার ও সহকারী রিটার্নিং অফিসারের কাছ মনোনয়নপত্র জমা দিতে হবে। রিটার্নিং অফিসার ১ থেকে ২ জুলাই মনোনয়নপত্র বাছাই করবেন। প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ দিন ৯ জুলাই। আর ৩০ জুলাই ভোট গ্রহণ হবে। 
তফসিল ঘোষণাকালে ইসি সচিব হেলালুদ্দীন বলেন, ‘বরিশাল, রাজশাহী ও সিলেটের আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তাদের রিটার্নিং কর্মকর্তা হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। তিনি জানান, রাজশাহীতে ১০ জন, বরিশালে ১০ জন ও সিলেটে ৯ জনকে সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। মনোনয়নপত্র বাছাইয়ের পরে আপিল কর্তৃপক্ষ হিসেবে সহকারী বিভাগীয় কমিশনার দায়িত্ব পালন করবেন।
ইসি সচিব বলেন, ‘ইভিএম ব্যবহারের ব্যাপারে এখনও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। তবে এই তিন সিটি নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহারের পরিকল্পনা আছে। আর গাজীপুরে ছয়টি কেন্দ্রে ইভিএম ব্যবহার করা হবে।


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ








চিরনিদ্রায় গোলাম সারওয়ার

চিরনিদ্রায় গোলাম সারওয়ার

১৭ অগাস্ট, ২০১৮ ০০:০৮



আমীর খসরুকে  দুদকে তলব 

আমীর খসরুকে  দুদকে তলব 

১৭ অগাস্ট, ২০১৮ ০০:০২



ব্রেকিং নিউজ











ফাইনালে বাংলাদেশের মেয়েরা

ফাইনালে বাংলাদেশের মেয়েরা

১৭ অগাস্ট, ২০১৮ ০১:০২