খুলনা | সোমবার | ২২ অক্টোবর ২০১৮ | ৭ কার্তিক ১৪২৫ |

Shomoyer Khobor

২০ দলীয় জোটের পক্ষে প্রধান সমন্বয়কারী এড. মনা  : নির্বাচন পরিচালনা কমিটির আহবায়ক  মোর্ত্তজা, সদস্য সচিব এজাজ

ঐক্যবদ্ধভাবে ভোট কেন্দ্র পাহারায় কাজ  করবে খুলনা জেলা ও নগর বিএনপি

নিজস্ব প্রতিবেদক | প্রকাশিত ১৭ এপ্রিল, ২০১৮ ০১:৩২:০০

খুলনা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে ধানের শীষ প্রতীকের বিজয়ের মাধ্যমে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের সংগ্রামের চ্যালেঞ্জ ঐক্যবদ্ধভাবে মোকাবেলা করবে জেলা ও মহানগর বিএনপি। গতকাল সোমবার দুপুর সাড়ে ১২টায় দলীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত যৌথ সভা থেকে এ ঘোষণা দেয়া হয়। সভায় বলা হয়, ১৫ মে কেসিসি’র আসন্ন নির্বাচনে ধানের শীষের পক্ষে জনজোয়ার সৃষ্টি করা হবে। জনগণকে সাথে নিয়ে ভোট কেন্দ্র পাহারা দিয়ে ফলাফল বুঝে নেয়া হবে। যাতে কোন ভোট ডাকাত, সন্ত্রাসী, পেশীশক্তি ও কালো টাকার মালিকরা নির্বাচনে প্রভাব ফেলতে না পারে। 
যৌথ সভায় সভাপতিত্ব করেন বিএনপি’র নির্বাহী কমিটির সদস্য ও জেলা সভাপতি এড. এস এম শফিকুল আলম মনা। প্রধান অতিথি ছিলেন বিএনপি’র কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও নগর সভাপতি এবং কেসিসি নির্বাচনে ধানের শীষ প্রতীকের প্রার্থী নজরুল ইসলাম মঞ্জু। বিশেষ অতিথি ছিলেন কেন্দ্রীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক অনিন্দ্য ইসলাম অমিত, সাধারণ সম্পাদক ও কেসিসি’র মেয়র মনিরুজ্জামান মনি এবং নগরের সিনিয়র সহ-সভাপতি সাহারুজ্জামান মোর্ত্তজা। সভা পরিচালনা করেন জেলা বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক আমীর এজাজ খান।
সভায় ২০ দলীয় জোটের পক্ষে নির্বাচন পরিচালনার জন্য সমন্বয়কারীর দায়িত্ব প্রদান করা হয় জেলা বিএনপি’র সভাপতি এড. এস এম শফিকুল আলম মনাকে। এছাড়া কেসিসি নির্বাচন পরিচালনার জন্য গঠিত নির্বাচন পরিচালনা কমিটি গঠন করা হয়। এতে নগর বিএনপি’র সিনিয়র সহ-সভাপতি সাহারুজ্জামান মোর্ত্তজাকে আহবায়ক, আমীর এজাজ খানকে সদস্য সচিব এবং নগর ও জেলা বিএনপি’র সিনিয়র নেতৃবৃন্দকে সদস্য করে একটি কমিটি গঠন করা হয়। 
এছাড়া নির্বাচনী বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনার জন্য আরো ১১টি উপ কমিটি গঠনের প্রস্তাব করা হয়। সভা থেকে জানানো হয়, খুলনা সিটি কর্পোরেশনের ৪ লাখ ৯৩ হাজার ভোটারের কাছে ধানের শীষে ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করার আহ্বান পৌঁছে দেয়া হবে। ‘ঘরে ঘরে ধানের শীষ’ এই শ্লোগানে বিএনপি এবং অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মীদের সমন্বয়ে গঠিত টিম কাজ করবে। এছাড়া ঢাকা থেকে বিএনপি’র শীর্ষ নেতৃবৃন্দ এবং অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের সদস্যদের টিম খুলনায় এসে নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নেবে। মাদার অব ডেমোক্রেসি দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে কারামুক্ত করা, অবরুদ্ধ গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার, ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান দেশনায়ক তারেক রহমানকে দেশে ফিরে আসার পথ সুগম করা এবং সব দলের অংশ গ্রহণে একটি অবাধ, সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ নির্বাচনের মাধ্যমে জনগনের ভোটের অধিকার প্রতিষ্ঠার আন্দোলনের বিজয় অর্জন ছাড়া বিএনপি’র সামনে আর কোন পথ খোলা নেই বলে সভায় উল্লেখ করা হয়। 
সভায় জেলা বিএনপি’র পক্ষে উপস্থিত ছিলেন গাজী তফসির আহমেদ, খান জুলফিকার আলী জুলু, মনিরুজ্জামান মন্টু, শেখ আব্দুর রশিদ, এস এম মনিরুল হাসান বাপ্পী, জি এম কামরুজ্জামান টুকু, এস এ রহমান বাবুল, অধ্যাপক মনিরুল হক বাবুল, খান আলী মুনসুর, মোল্লা খায়রুল ইসলাম, শরিফুল ইসলাম জোয়াদ্দার জলি, আব্দুর রকিব মল্লিক, মোস্তফা উল বারী লাভলু, এড. তছলিমা খাতুন ছন্দা, মোল্লা মোশারফ হোসেন মফিজ, মেজবাউল আলম, শামসুল আলম পিন্টু, এড. কে এম শহিদুল আলম, মুর্শিদুর রহমান লিটন, ওহেদুজ্জামান রানা, ডাঃ আব্দুল মজিদ, এড. মোমরেজুল ইসলাম, শামীম কবির, তৈয়েবুর রহমান, ইবাদুল হক রুবায়েদ, এড. আব্দুস সাত্তার, খায়রুল ইসলাম খান জনি, উজ্জল কুমার সাহা, পূর্ণিমা হোসেন, মোল্লা সাইফুর রহমান, খন্দকার ফারুক হোসেন, আবুল বাশার, আব্দুল মান্নান মিস্ত্রি, গোলাম মোস্তফা তুহিন, শাহাদাত হোসেন ডাবলু, রফিকুল ইসলাম বাবু, শামসুল বারিক পান্না। 
নগর বিএনপি’র নেতাদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মীর কায়সেদ আলী, জাফরউল্লাহ খান সাচ্চু, মোল্লা আবুল কাশেম, জলিল খান কালাম, সিরাজুল ইসলাম, স ম আব্দুর রহমান, ফখরুল আলম, অধ্যক্ষ তারিকুল ইসলাম, সিরাজুল হক নান্œু, আসাদুজ্জামান মুরাদ, মহিবুজ্জামান কচি, আজিজুল হাসান দুলু, মুজিবর রহমান, ইউসুফ হারুন মজনু, একরামুল হক হেলাল, সাজ্জাদ আহসান পরাগ, একরামুল হক হেলাল, শামসুজ্জামান চঞ্চল, মাহবুব হাসান পিয়ারু, কামরান হাসান, শরিফুল ইসলাম বাবু প্রমুখ। 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ


সাড়ে ৫শ’ পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার ৩

সাড়ে ৫শ’ পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার ৩

২২ অক্টোবর, ২০১৮ ০১:২০












ব্রেকিং নিউজ


সাড়ে ৫শ’ পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার ৩

সাড়ে ৫শ’ পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার ৩

২২ অক্টোবর, ২০১৮ ০১:২০