খুলনা | শনিবার | ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮ | ৭ আশ্বিন ১৪২৫ |

Shomoyer Khobor

নগরভবন পুরুদ্ধারে ঐক্যবদ্ধ আ’লীগ

আশরাফুল ইসলাম নূর | প্রকাশিত ১৬ এপ্রিল, ২০১৮ ০২:০০:০০

খুলনা সিটি কর্পোরেশন (কেসিসি) নির্বাচনে ‘নগর ভবন’র কর্তৃত্ব পুনরুদ্ধারে অতীতের কোন সময়ের চেয়ে ঐক্যবদ্ধ আ’লীগ। অভ্যন্তরীণ সব বিরোধ মিটিয়ে শীর্ষ নেতারা তৃণমূল নেতা-কর্মীদের সে অনুযায়ী সোচ্চার ও সক্রিয় ভূমিকা রাখতে নির্দেশ দিচ্ছেন। ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে চলছে কেন্দ্র কমিটি গঠনের সাংগঠনিক কর্মযজ্ঞ। কেন্দ্রীয় একজন নেতাও ইতিমধ্যে সমন্বয়কের ভূমিকা পালন করছেন খুলনায়।
দলীয় সূত্রমতে, গত ২ এপ্রিল সন্ধ্যায় নগর আ’লীগের বর্ধিত সভায় সর্বসম্মতিক্রমে আলহাজ্ব তালুকদার আব্দুল খালেককে মেয়র প্রার্থী হিসেবে কেন্দ্রে সুপারিশের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছিল, তবে ছিলেন আরও কয়েকজন সম্ভাব্য প্রার্থী। সর্বশেষ গত ৮ এপ্রিল রাতে ধানমন্ডি কার্যালয়ে স্থানীয় সরকার নির্বাচন মনোনয়ন বোর্ডের সভানেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সাবেক মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেককেই কেসিসি মেয়র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দেন। কেসিসিতে নির্বাচন করতে রাজি না হওয়ার কারণ হিসেবে গেল নির্বাচনে পরাজয়ের কয়েকটি ব্যাখ্যা নেত্রীর সামনে উপস্থাপন করেছিলেন তিনি। সে সময় নেত্রী উপস্থিত নেতৃবৃন্দকে ঐক্যবদ্ধভাবে কেসিসি নির্বাচনে তালুকদার আব্দুল খালেকের পক্ষে কাজ করে বিজয়ী বেশে দেখার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। এরপরে মনোনয়ন প্রত্যাশী সকলেই নির্বাচন কমিশনের মনোয়নপত্র সংগ্রহ করা থেকে বিরত থাকেন, একই সাথে যেকোন মূল্যে ‘নগর ভবন’ পুরুদ্ধারে ঐকবদ্ধভাবে কেসিসি নির্বাচনে লড়াইলের ঘোষণা দেন। তার মধ্যে জেলা আওয়ামী লীগ তাদের স্বতঃস্ফূর্ত সমর্থন দেয়। গত ১০ এপ্রিল বাগেরহাট-৩ (রামপাল-মংলা) আসনের সংসদ সদস্য পদ থেকে পদত্যাগ করেন তিনি। আ’লীগের সভানেত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনা খুলনাবাসীর কাছে পৌঁছে দিতে বঙ্গবন্ধুর দু’জন ভ্রাতুষ্পুত্র শেখ হেলাল উদ্দিন এমপি, শেখ সোহেল ও কেন্দ্রীয় নেতা এসএম কামাল হোসেন স্থানীয় শীর্ষ নেতাদের সাথে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রাখছেন। কেন্দ্রীয় নেতা এসএম কামাল হোসেন সকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত খুলনায় সাংগঠনিক ব্যস্ত সময় পার করছেন বলে নেতা-কর্মীরা জানান।
একাধিক দলীয় সূত্র বলছেন, গেল কেসিসি নির্বাচনে দলের একটি অংশ তৎকালীন মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেকের নিরব বিরোধীতা করেছিল বলে অভ্যন্তরীণ আলোচনা-সমালোচনা রয়েছে। গত ৩ মার্চ খুলনা সার্কিট হাউজ ময়দানে প্রধানমন্ত্রীর জনসভায় বক্তৃতা দেবার পর খুলনার কোন একটি সংসদীয় আসনে নির্বাচন করবেন শিল্পপতি সালাম মুর্শেদী; এমন সরব আলোচনায় ওই দ্বন্দ্বের নিরসন হয়েছে বলে একাধিক নেতা জানিয়েছেন। অভ্যন্তরীণ সকল ভেদাভেদ ভুলে আসন্ন কেসিসি নির্বাচনে সাবেক মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেককেই বিজয়ী করতে বদ্ধপরিকর খুলনা আওয়ামী লীগ।
এ ব্যাপারে আ’লীগের কেন্দ্রীয় নেতা এসএম কামাল হোসেন বলেন, “সারাদেশের আনুপাতিক হিসেবে খুলনা তথা দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলে বর্তমান সরকারের আমলে সবচেয়ে বেশি উন্নয়ন হয়েছে, হবে। এটা খুলনাবাসীর বুঝবে, এজন্যই কেসিসি নির্বাচনে তালুকদার আব্দুল খালেকের বিজয়ের ব্যাপারে আমরা শতভাগ আশাবাদী। দেশের সর্ববৃহৎ ও ঐতিহ্যবাহী সংগঠন আওয়ামী লীগের মধ্যে যোগ্য নেতাদের পদ-পদবী ও নেতৃত্ব নিয়ে প্রতিযোগিতা থাকতেই পারে; তবে এই মুহূর্তে কোন আন্তঃকলহ নেই। সকলেই ঐক্যবদ্ধভাবে খুলনাবাসীর কাছে ‘নৌকা’ প্রতীকে ভোট প্রার্থনা করছি।”
 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ




আজ ১০ মহররম পবিত্র আশুরা 

আজ ১০ মহররম পবিত্র আশুরা 

২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:৫৮

কেসিসিতে আজ ও কাল সাপ্তাহিক ছুটি বাতিল

কেসিসিতে আজ ও কাল সাপ্তাহিক ছুটি বাতিল

২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:৫৭









ব্রেকিং নিউজ




আজ ১০ মহররম পবিত্র আশুরা 

আজ ১০ মহররম পবিত্র আশুরা 

২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:৫৮

কেসিসিতে আজ ও কাল সাপ্তাহিক ছুটি বাতিল

কেসিসিতে আজ ও কাল সাপ্তাহিক ছুটি বাতিল

২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:৫৭





খুলনায় সেঞ্চুরিতে নজর কাড়লেন সোহান

খুলনায় সেঞ্চুরিতে নজর কাড়লেন সোহান

২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:৫০


অভিষেকেই আবু হায়দার রনির চমক

অভিষেকেই আবু হায়দার রনির চমক

২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:৪৫