খুলনা | মঙ্গলবার | ২০ ফেব্রুয়ারী ২০১৮ | ৮ ফাল্গুন ১৪২৪ |

Shomoyer Khobor

গণভবন থেকে প্রধানমন্ত্রী ও গুলশানে খালেদা জিয়া : দ্বিতীয় পর্ব শুক্রবার শুরু : ২০১৯ সালে ১১ জানুয়ারি 

দেশ ও মুসলিম উম্মাহর শান্তি  কামনা আখেরি মোনাজাতে

খবর প্রতিবেদন | প্রকাশিত ১৫ জানুয়ারী, ২০১৮ ০০:১০:০০

দেশ ও মুসলিম উম্মাহর শান্তি কামনায় টঙ্গীর তুরাগ তীরের বিশ্ব ইজতেমার আখেরি মোনাজাতে লাখ লাখ মুসল্লি¬ দুই হাত তুলে আল্ল¬াহর দরবারে ফরিয়াদ জানিয়েছেন। এ সময় তাঁরা চোখের জলে জাহানের সব মানুষের জন্য মঙ্গল কামনা করেন। গতকাল রবিবার বেলা পৌনে ১১টায় আখেরি মোনাজাত শুরু হয়। ইজতেমা ময়দানে বিদেশি নিবাসের পূর্বপাশে বিশেষভাবে স্থাপিত মঞ্চ থেকে এ মোনাজাত পরিচালনা করা হয়। এর আগে অনুষ্ঠিত হয় হেদায়েতি বয়ান। ভারতের মাওলানা সাদ কয়েক বছর ধরে ইজতেমায় আখেরি মোনাজাত পরিচালনা করলেও এবার তাঁর পরিবর্তে বাংলাদেশের কাকরাইল মসজিদের ইমাম হজরত মাওলানা যোবায়ের হাসান আখেরি মোনাজাত পরিচালনা করেন। বিভিন্ন টিভি চ্যানেল ও রেডিও মাধ্যম সরাসরি সম্প্রচার করে মোনাজাত।
আখেরি মোনাজাত উপলক্ষে ইজতেমার মূল মঞ্চ থেকে আশপাশের সব জায়গা মুসল্লি¬দের আগমনে পরিপূর্ণ হয়ে উঠে। মানুষ অবস্থান নেয় রাজপথসহ আশপাশের বাসাবাড়ির ছাদে।
এদিকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাঁর সরকারি বাসভবন গণভবন থেকে আখেরি মোনাজাতে অংশগ্রহণ করেন। এসময় আ’লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য অ্যাডভোকেট সাহারা খাতুন, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ডাঃ দীপু মনি ও কৃষিবিষয়ক সম্পাদক ফরিদুন্নাহার লাইলিসহ প্রধানমন্ত্রীর পরিবারের সদস্য ও আত্মীয়রা এ সময় গণভবনে তাঁর সঙ্গে মোনাজাতে অংশ নেন। প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব মোঃ নজিবুর রহমান, সামরিক সচিব মেজর জেনারেল মিয়া মোহম্মদ জয়নুল আবেদীন, প্রেস সচিব ইহসানুল করিম, বিশেষ সহকারী ড. আবদুস সোবহান গোলাপ এবং প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় ও গণভবনের কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা এ সময় সেখানে মোনাজাতে অংশগ্রহণ করেন।
অন্যদিকে রাজধানীর গুলশানের নিজ বাসভবন ফিরোজা থেকে বিশ্ব ইজতেমার আখেরি মোনাজাতে অংশ নেন বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। নিশ্চিত করেছেন দলের চেয়ারপারসনের গণমাধ্যম শাখার কর্মকর্তা শামসুদ্দিন দিদার।
আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হলো এবারের ৫৩তম বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব। এরপর চারদিন বিরতি দিয়ে আগামী শুক্রবার শুরু হবে তিনদিনের বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্ব। আখেরি মোনাজাতে মুসলি¬দের আসা ও যাওয়া নিরাপদ করতে শনিবার দিবাগত রাত থেকে মোনাজাত অনুষ্ঠান পর্যন্ত ইজতেমা ময়দান্সামী সড়কে যানবাহন চলাচলে বিধি-নিষেধ আরোপ করে পুলিশ।
আগামী বছর বিশ্ব ইজতেমা ১১ জানুয়ারি থেকে অনুষ্ঠিত হবে। শুক্রবার রাতে কাকরাইল মসজিদে তাবলিগ মুরুব্বিদের এক পরামর্শ সভায় ওই তারিখ নির্ধারণ করা হয়।
বিশ্ব ইজতেমার মুরুব্বি মোঃ গিয়াস উদ্দিন জানান, তাবলিগ জামাতের শীর্ষ মুরুব্বিদের সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী আগামী বছর বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব ১১, ১২ ও ১৩ জানুয়ারি এবং চারদিন বিরতি দিয়ে দ্বিতীয় পর্ব ১৮, ১৯ ও ২০ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হবে।
 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ

চাঁদ দেখা যায়নি, জমাদিউস  সানি শুরু কাল

চাঁদ দেখা যায়নি, জমাদিউস  সানি শুরু কাল

১৭ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮ ০০:১০

ইসলামে জ্ঞানার্জন ও জ্ঞানীর মর্যাদা

ইসলামে জ্ঞানার্জন ও জ্ঞানীর মর্যাদা

০৩ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮ ১৭:৫৮

একাত্মবাদকে হৃদয়ে আঁকড়ে ধরতে হবে

একাত্মবাদকে হৃদয়ে আঁকড়ে ধরতে হবে

২০ জানুয়ারী, ২০১৮ ১৩:৩১


আখেরাতের জন্য প্রস্তুতি নিতে হবে

আখেরাতের জন্য প্রস্তুতি নিতে হবে

০৬ জানুয়ারী, ২০১৮ ১৩:২৩









ব্রেকিং নিউজ