খুলনা | বুধবার | ১৭ অক্টোবর ২০১৮ | ২ কার্তিক ১৪২৫ |

Shomoyer Khobor

‘আগামী নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সংলাপের প্রয়োজনীয়তা দেখছি না’

নির্বাচনের সময় নির্বাচনকালীন সরকার থাকবে এটা সংবিধানেই আছে : ওবায়দুল

খবর প্রতিবেদন | প্রকাশিত ১৪ জানুয়ারী, ২০১৮ ০০:০৪:০০

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, নির্বাচনের সময় নির্বাচনকালীন সরকার থাকবে, এটা সংবিধানেই আছে। আর সংলাপের দরজা চিরদিনের জন্য বন্ধ করতে চাই না, আমরা একটা রাজনৈতিক দল। প্রয়োজনে সংলাপ হতে পারে, তবে আগামী নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সংলাপের প্রয়োজনীয়তা দেখছি না। শনিবার বিকেলে রাজধানীর ধানমন্ডিতে আ’লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন। জাতির উদ্দেশ্যে দেওয়া প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভাষণের প্রতিক্রিয়ায় বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের বক্তব্যের জবাবে এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।
সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, নির্বাচন বিএনপি’র অধিকার, এটা সুযোগ নয়। বসাবসির কী প্রয়োজন এখানে? সরকারের দয়াদাক্ষিণ্যের ওপর নির্বাচন করবে তারা? তাহলে সংলাপে বসবে কেন? নির্বাচন নিয়ে কোনও জটিলতা আছে বলে জনগণ মনে করে না।
ওবায়দুল কাদেরের ভাষ্য, সংলাপ কেন হবে না, প্রয়োজন হলে হবে। কিন্তু এখন নির্বাচনের ব্যাপারে সংলাপের প্রয়োজনীয়তা দেখছি না। নির্বাচনের জন্য সংবিধানে যে পথ রয়েছে, সেই অনুযায়ী নির্বাচন হবে। সেই পথ নিয়ে সংলাপ করতে হবে কেন? ২০১৩ সালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সংলাপের জন্য খালেদা জিয়াকে গণভবনে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন। কিন্তু তিনি যাননি। 
এসব প্রসঙ্গ টেনে ওবায়দুল কাদের বলেন, সংলাপের পরিবেশ বিএনপিই রাখেনি। সেদিন প্রধানমন্ত্রীকে নোংরা ভাষায় অসৌজন্যমূলক কথা বলেছেন খালেদা জিয়া, মনে আছে? সেদিন প্রধানমন্ত্রীর আমন্ত্রণে খালেদা জিয়া গণভবনে এলে গণতান্ত্রিক রাজনৈতিক চেহারাটা অন্যরকম হতো। সংলাপের পরিবেশ তারাই নষ্ট করলেন। 
সেতুমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী গত শুক্রবার বলেছেন, সংবিধান অনুযায়ী নির্বাচন হবে। নির্বাচনের সময় নির্বাচনকালীন সরকার থাকবে, এটা সংবিধানেই আছে। ওই ক্যাবিনেটের কাজ ও আকার কমে আসে। তারা সরকারের রুটিন কাজ পালন করবে। নির্বাচন কমিশন সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়গুলো ইসির অধীনে চলে যায়। নির্বাচন কমিশনের যে যে সহযোগিতা দরকার, নির্বাচনকালীন সরকার তাই করবে। জাতির উদ্দেশ্যে প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া ভাষণ যারা শুনেছেন তারা একবাক্যে প্রশংসা করেছেন ও সমর্থন দিয়েছেন বলে দাবি ওবায়দুল কাদেরের। 
বিএনপিকে ইঙ্গিত করে সড়ক পরিবহনমন্ত্রী আরও বলেছেন, ‘মানুষের চোখের ভাষা যারা বোঝেন না তারাই রাজনীতিতে ভুল করতে করতে ভুলের বালুচরে আটকায়। বিএনপি মানুষের চোখের ভাষা বোঝে না বলেই ৫ জানুয়ারির (২০১৪) নির্বাচন বয়কট করে আত্মঘাতী সিদ্ধান্ত নিয়েছিল।
 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ





প্রধানমন্ত্রী সৌদিতে 

প্রধানমন্ত্রী সৌদিতে 

১৭ অক্টোবর, ২০১৮ ০০:২২









ব্রেকিং নিউজ











‘বাংলাদেশে কোন সংখ্যালঘু নেই’ 

‘বাংলাদেশে কোন সংখ্যালঘু নেই’ 

১৭ অক্টোবর, ২০১৮ ০০:৩৭