খুলনা | বুধবার | ১৭ অক্টোবর ২০১৮ | ২ কার্তিক ১৪২৫ |

Shomoyer Khobor

উৎসাহ উদ্দীপনায় উন্নয়ন মেলা সমাপ্ত 

খবর প্রতিবেদন | প্রকাশিত ১৪ জানুয়ারী, ২০১৮ ০০:১০:০০

উৎসাহ উদ্দীপনায় উন্নয়ন মেলা সমাপ্ত 

উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে গতকাল শনিবার বিভিন্ন স্থানে শেষ হয়েছে ৩ দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলা।
॥ সাতক্ষীরা ॥
সাতক্ষীরা প্রতিনিধি জানান, সাতক্ষীরায় ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে গতকাল শনিবার বিকেলে শেষ হয়েছে ৩ দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলা-২০১৮। সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে শহরের শহিদ আব্দুর রাজ্জাক পার্কে এই মেলার আয়োজন করা হয়। মেলার সমাপনি দিনে পুরস্কার বিতরণ ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের অয়োজন করা হয়। জেলা প্রশাসক আবুল কাশেম মোঃ মহিউদ্দিনের সভাপতিত্বে সমাপনি অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন সংসদ সদস্য মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এ এন এম মঈনুল ইসলাম, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সাতক্ষীরার উপ-পরিচালক কৃষিবিদ কাজী আব্দুল মান্নান, সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবের সভাপতি অধ্যক্ষ আবু আহমেদ প্রমুখ। 
এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোঃ জাকির হোসেন, স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক আব্দুল লতিফ খান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মোঃ আব্দুল হান্নান, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার তহমিনা খাতুন, সড়ক ও জনপদ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মনজুরুল করিম, সাতক্ষীরা আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের সহকারী পরিচালক এ কে এম আবু সাঈদ। অনুষ্ঠানে প্রধান অথিতি বলেন, সরকারের উন্নয়নের চিত্র জনগণের সামনে তুলে ধরতে এ উন্নয়ন মেলার আয়োজন। বিশ্বের দরবারে বাংলাদেশ আজ মেরুদণ্ড সোজা করে দাঁড়িয়েছে। পদ্মাসেতু আজ দৃশ্যমান এবং বাংলাদেশে ৩য় সমুদ্রবন্দর হতে যাচ্ছে। আলোচনা সভা শেষে রচনা ও সাধারণ জ্ঞাণ প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারী বিজয়ীদের মাঝে পুরুস্কার বিতরণ করা হয়। একই সাথে মেলায় অংশগ্রহণকারী শ্রেষ্ঠ স্টল ১ম, ২য় ও ৩য় স্থান অধিকারকারীদের মাঝে পুরস্কার প্রদান করা হয়। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন এনডিসি মোশারেফ হোসেন। 
॥ বটিয়াঘাটা ॥
বটিয়াঘাটা প্রতিনিধি জানান, গতকাল শনিবার বিকেল ৩টায় বটিয়াঘাটা উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে উন্নয়ন মেলার সমাপনী ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতা করেন খুলনা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শেখ হারুনুর রশিদ। তিনি বলেন আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসলে দেশে বিভিন্ন সেক্টরে ব্যাপক উন্নয়ন সাধিত হয়। যার সুফল বাংলাদেশের শহর থেকে প্রত্যন্ত গ্রামাঞ্চলের সাধারণ মানুষ এ সুবিধা ভোগ করছে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) শেখ মহিউদ্দিন-এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান আশরাফুল আলম খান, খুলনা জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সাংগঠনিক সম্পাদক কামরুজ্জামান জামাল, জেলা আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক এড. নিমাই চন্দ্র রায়, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান নিতাই চন্দ্র গাইন, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান বুলু রায় গাঙ্গুলী, স্বাস্থ্য কর্মকর্তা রামপদ সাহা,  প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা স্বপন কুমার রায়, কৃষি কর্মকর্তা রুবায়েত আরা, থানা অফিসার ইনচার্জ মোজাম্মেল হক মামুন, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার শেখ আফজাল হোসেন। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পদক ও জেলা পরিষদ সদস্য দিলীপ হালদার, মৎস্য কর্মকর্তা মনিরুল মামুন, সমাজ সেবা কর্মকর্তা অমিত সমাদ্দার, যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা মোনায়েম খান, প্রকৌশলী মাহমুদ হাসান, মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা নারায়ন চন্দ্র মন্ডল, প্রাথমিক শিক্ষা মোঃ হাবিবুর রহমান, খাদ্য নিয়ন্ত্রক জাকির হোসেন, জনস্বাস্থ্য প্রকৌশলী বিপ্রকাশ ঢালী, ভ্যাটেনারী সার্জন বঙ্কিম হালদার, চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা মনোরঞ্জন মন্ডল, শেখ হাদী উজ জামান হাদী, আব্দুল হাদী সরদার, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ইমরান হোসেন ইমু, উপজেলা প্রেস ক্লাবের সভাপতি ইন্দ্রজিত টিকাদার, সাংবাদিক এনায়েত আলী বিশ্বাস, জলমা তহশীলদার জগন্নাথ ঘোষ, সুরখালী তহশীলদার স্বপন কুমার, সহকারী তহশীলদার বাবুল আক্তার, জালাল হোসেন, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি রিয়াজুল ইসলাম রিপন, নির্বাহী অফিসারের সি এ মনিরুল ইসলাম, উপজেলা চেয়ারম্যানের সি এ মোঃ হারুন প্রমুখ। এ সময় অতিথিবৃন্দ উন্নয়ন মেলায় বিভিন্ন ধরনের স্টল পরিদর্শন করেন এবং অনুষ্ঠানের শেষে বিভিন্ন বিষয়ে বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন। 
॥ অভয়নগর ॥
অভয়নগর প্রতিনিধি জানান, যশোরের অভয়নগর উপজেলায় ৩ দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলার সমাপনী ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান পরিদর্শণ করেছেন জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব ড. মোঃ মোজাম্মেল হক খান। গতকাল শনিবার বিকেলে মেলা প্রাঙ্গণে উপস্থিত হয়ে সকল স্টল পরিদর্শণ করেন। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন খুলনা বিভাগীয় কমিশনার লোকমান হোসেন মিয়া, অভয়নগর উপজেলা নির্বাহী অফিসার এম এম মাহমুদুর রহমান, কৃষি অফিসার গোলাম সামদানী, পিআইও রিজিবুল ইসলাম, নওয়াপাড়া কলেজের অধ্যক্ষ রবিউল হাসান, সাংবাদিক এম এম আলাউদ্দিন প্রমুখ। মেলা প্রাঙ্গণে মোট ৪০টি স্টল করা হয়েছে। যা সরকারের বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডের চিত্র তুলে ধরেছে। 
॥ রূপসা ॥
রূপসা প্রতিনিধি জানান, উৎসাহ, উদ্দীপনা ও জাকজমক ভাবে রূপসা উপজেলায় ৩ দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলার সমাপনী অনুষ্ঠান গতকাল শনিবার বিকেলে অনুষ্ঠিত হয়। এ মেলায় উপজেলার বিভিন্ন দপ্তর, ব্যাংক, বীমাসহ মোট ৪০টি স্টল অংশগ্রহণ করেছিল। তাদেরকে পুরস্কৃত করা হয়। সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে পুরস্কার বিতরণ করেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ কামাল উদ্দীন বাদশা। উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ ইলিয়াছুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে সম্মানিত অতিথি ছিলেন অর্থ মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব আনোয়ারুল কবীর। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক এড. সুজিত কুমার অধিকারী, রূপসা থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ রফিকুল ইসলাম। যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা মোঃ আবু বকরের পরিচালনা বক্তৃতা করেন প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ এবিএম জাকির হোসেন, কৃষি কর্মকর্তা রবিউল ইসলাম, নির্বাচন অফিসার মোল্লা নাসির আহম্মেদ, সমাজ সেবা কর্মকর্তা প্রবীর রায়, শিক্ষা কর্মকর্তা মুহাঃ আবুল কাশেম, হিসাবরক্ষণ অফিসার আসাদুজ্জামান খান, ইউআরসি ইনসট্রাক্টর নজিবুর রহমান, মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা তাহিরা খাতুন, ইউপি চেয়ারম্যান সাধন কুমার অধিকারী, সহকারী মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা গোলাম মোস্তফা, অধ্যাপক আল মামুন সরকার প্রমুখ। অনুষ্ঠানে খুলনা ফায়ার সার্ভিসের প্রতিনিধি দল অগ্নি নির্বাপনের উপর একটি মহড়া প্রদর্শন করে। অনুষ্ঠানের সার্বিক সহযোগীতা করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ের আইসিটি টেকনিশিয়ান এস এম অনিকুজ্জামান। অনুষ্ঠানে যৌথ ভাবে প্রথম পুরস্কার গ্রহণ করে ফায়ার সার্ভিস, খুলনা ও উপজেলা নির্বাচন অফিস, দ্বিতীয় পুরস্কার গ্রহণ করে উপজেলা কৃষি অফিস ও উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস এবং তৃতীয় পুরস্কার গ্রহণ করে উপজেলা যুব উন্নয়ন দপ্তর।
॥ তেরখাদা ॥
তেরখাদা প্রতিনিধি জানান, সারা দেশের ন্যায় তেরখাদা উপজেলাতে সরকারের বিভিন্ন সাফল্য তুলে ধরে ৩ দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলার আয়োজন করা হয়। গতকাল শনিবার উৎসবমুখর পরিবেশে শেষ হয়েছে মেলা। সমাপনী অনুষ্ঠানে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ লিটন আলীর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মোল্লা এহিউল ইসলাম। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ফাতেমা-তুজ-জোহরা, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ইউপি চেয়ারম্যান এফ এম অহিদুজ্জামান, সাধারণ সম্পাদক ইউপি চেয়ারম্যান কে এম আলমগীর হোসেন, উপজেলা সিনিয়র মৎস কর্মকর্তা জিএম সেলিম, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কাজী শাহ্ নেওয়াজ। উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আব্দুল আকন আওয়ালের পরিচালনায় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা প্রকৌশলী মোঃ শহিদুল ইসলাম, প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা শেখ মনিরুল ইসলাম, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধার ডেপুটি কমান্ডার চৌধুরী আবুল খায়ের, উপজেলা পূজা উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা অরবিন্দ প্রসাদ সাহা, ছাগলাদাহ ইউপি চেয়ারম্যান এস এম দীন ইসলাম, উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোঃ সাইফুর রহমান, প্রধান শিক্ষক প্রদীপ কুমার সাহা, উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা বাছিতুল হাবিব প্রিন্স প্রমুখ।  
॥ কয়রা ॥
কয়রা প্রতিনিধি জানান, কয়রা উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে ৩ দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলা গতকাল শনিবার শেষ হয়েছে। বেলা ১১টায় উপজেলা পরিষদ চত্বরে উপজেলা নির্বাহী অফিসার শিমুল কুমার সাহার সভাপতিত্বে ও উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার এস এম সুলতান মাহমুদের পরিচালনায় সমাপনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যান আখম তমিজ উদ্দিন, কয়রা থানা অফিসার ইনচার্জ মোঃ এনামুল হক, উপজেলা কৃষি অফিসার এস এম মিজান মাহমুদ, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ সুজাত আহমেদ, উপজেলা প্রকৌশলী নিরাপদ পাল, শিক্ষা অফিসার এবিএম নাজমুল হক, উপজেলা হিসাবরক্ষণ অফিসার জিএম নুরুল আমিন, বিআরডিবি অফিসার মোঃ বাহাউল ইসলাম, মৎস্য অফিসার মোঃ আলাউদ্দিন আহমেদ, কয়রা সদর ইউপি চেয়ারম্যান এস এম শফিকুল ইসলাম, জেলা পরিষদের সদস্য জহুরুল হক বাচ্চু, মুক্তিযোদ্ধা ডেপুটি কমান্ডার লুৎফর রহমান, কপোতাক্ষ কলেজের অধ্যাপক সন্তোশ কুমার বিশ্বাস, যুবলীগ নেতা মোস্তাফিজুর রহমান প্রমুখ। মেলা শেষে শ্রেষ্ঠ স্টল প্রথম স্থান যৌথভাবে উপজেলা প্রকৌশলী অফিস ও মৎস্য অফিস, দ্বিতীয় স্থান যৌথভাবে কয়রা থানা পুলিশ ও কৃষি অফিস, তৃতীয় স্থান যৌথভাবে উপজেলা পল্লী উন্নয়ন বোর্ড ও  উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা বিভাগের মাঝে সম্মাননা প্রদান ও পুরস্কার বিতরণ করা হয়।
॥ রামপাল ॥
রামপাল প্রতিনিধি জানান, রামপালে ৩ দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলার শেষ দিনে গতকাল শনিবার বিকেল ৪টায় মেলায় অংশগ্রহণকারী ৩টি প্রতিষ্ঠানকে পুরস্কৃত করা হয়। এ উপলক্ষে রামপাল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তুষার কুমার পালের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান শেখ মোঃ আবু সাঈদ। অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান শেখ মোয়াজ্জেম হোসেন, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান হোসনে আরা মিলি, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার শেখ মোজাফ্ফর হোসেন, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মোল্লা আঃ রউফ, প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা কৃষিবিদ মোঃ জাহিদুর রহমান, মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা শাহজাহান মিয়া, সহকারী প্রোগ্রামার মোঃ আসাদুজ্জামান প্রমুখ। এর পূর্বে রচনা প্রতিযোগীতায় বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। মেলায় সরকারি-বেসরকারি দপ্তর ও বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মোট ৬৩টি প্রতিষ্ঠান অংশগ্রহণ করে।  
॥ নড়াইল ॥
নড়াইল প্রতিনিধি জানান, নড়াইলে বিভিন্ন আয়োজনে শেষ হলো ৩ দিনব্যাপী জেলা উন্নয়ন মেলা। গতকাল শনিবার সমাপনী ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে নড়াইল জেলা প্রশাসক মোঃ এমদাদুল হক চৌধুরীর সভাপতিত্বে বক্তব্য দেন জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এড. সোহরাব হোসেন বিশ্বাস, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এড. সুবাস চন্দ্র বোস, জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক মোঃ সিদ্দিকুর রহমান, জেলা কষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক চিন্ময় রায়, সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর নড়াইলের নির্বাহী প্রকৌশলী আবু হেনা মোস্তফা কামাল, জেলা মহিলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদিক রাবেয়া ইউসুফ প্রমুখ।
আলোচনা সভা শেষে মেলায় অংশগ্রহণকারী প্রতিষ্ঠানের মধ্য থেকে শ্রেষ্ঠ  ১০টি স্টলকে পুরস্কার প্রদান করা হয়। এ সময় মেলা উপলক্ষে বিভিন্ন প্রতিযোগীতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয় এবং গ্রেভশিল্পী গোষ্ঠির পরিবেশনায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশীত হয়। মেলায় সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন দপ্তরের ৭৯টি স্টল তাদের কর্মসূচি জনসাধারণের অবগতির জন্য তুলে ধরে। 
॥ ডুমুরিয়া ॥
ডুমুরিয়া প্রতিনিধি জানান, ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনা ও দর্শনার্থীদের উপচে পড়া ভীড়ের মধ্যদিয়ে ৩ দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলা গতকাল শনিবার সম্পন্ন হয়েছে। সমাপনী দিন বিকেলে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী নারায়ন চন্দ্র চন্দ এমপি। গত বৃহস্পতিবার থেকে ৩ দিনব্যাপী এ উন্নয়ন মেলার আয়োজন করে উপজেলা প্রশাসন। স্বাধীনতা স্মৃতিসৌধ চত্বরে মেলার মাঠে ৩৬টি স্টল স্থান পায়। এসব স্টলগুলোতে বর্তমান সরকারের গৃহিত ও বাস্তবায়িত সেবাধর্মী উন্নয়ন কার্যক্রম জনসাধারণের সামনে তুলে ধরা হয়। উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ আশেক হাসানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যদেন উপজেলা চেয়ারম্যান খান আলী মুনসুর ও খুলনা সিভিল সার্জন ডাঃ এ এস এম আব্দুর রাাজ্জাক। বক্তব্যদেন শিক্ষা অফিসার এস এম আলমগীর কবির, কৃষি অফিসার নজরুল ইসলাম প্রমুখ। শ্রেষ্ঠ ৪টি ক্যাটাগরিতে ১২টি স্টলের প্রধানকে পুরস্কৃত করা হয়। সাজসজ্জায় পানি উন্নয়ন বোর্ড, উপজেলা মহিলা বিষয়ক অফিস ও পল্লী উন্নয়ন বোর্ড, প্রদর্শনীতে উপজেলা কৃষি অফিস, উপজেলা মৎস্য অফিস ও উত্তরণের সফল প্রকল্প (এনজিও), কনটেন্ট উপস্থাপনায় ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স, উপজেলা প্রাণিসম্পদ অফিস ও এসিডিআই এনজিও এবং সেবাদানে পল্লী বিদ্যুৎ অফিস, উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও উপজেলা সেটেলমেন্ট অফিসের কর্মকর্তা’র হাতে ক্রেস্ট তুলে দেন প্রধান অতিথি। পরে ৩১৫ জন কৃষককের কৃষি উপকরণ, ১৫৮টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ল্যাপটপ বিতরণ, ১৭ জন যুবকদেরকে ৬ লাখ ৭৫ হাজার টাকা যুব ঋণ বিতরণ করা হয়। সভা পরিচালনা করেন শিক্ষক শফিকুল আলম। রাতে এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। 
॥ দাকোপ ॥
দাকোপ প্রতিনিধি জানান, দাকোপ উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে ৩ দিনব্যাপী নানা আয়োজনের মধ্যে দিয়ে বর্তমান সরকারের উন্নয়ন মেলা সম্পন্ন হয়েছে। এ লক্ষ্যে গতকাল শনিবার বিকেল ৩টায় উপজেলা পরিষদ মাঠে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ মারুফুল আলমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তৃতা করেন উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব শেখ আবুল হোসেন। বিশেষ অতিথির বক্তৃতা করেন চালনা পৌর মেয়র সনত কুমার বিশ্বাস, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পৌরপদ বাছাড়, এড. সুভদ্রা সরকার, উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাঃ মোজাম্মেল হক নিজামী, প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা পরিতোষ রায়, উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা জয়দেব পাল, ইউপি চেয়ারম্যান শেখ আব্দুল কাদের, মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা সুরাইয়া সিদ্দীকা, উপজেলা প্রকৌশলী তৌহিদুল হক জোয়াদার, প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মাছুম বিল্লাহ, প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা শেখ আব্দুল কাদের, যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা মোঃ মাহবুবুর রহমান, উপজেলা হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা মোঃ লতিফুর রহমান, সমবায় কর্মকর্তা গৌরহরি মল্লিক, দারিদ্র বিমোচন কর্মকর্তা আব্দুল হক হাওলাদার, এনজিও প্রতিনিধি হীড বাংলাদেশের এরিয়া ম্যানেজারি পার্থ প্রতীম চৌধুরী, উলাসী সৃজনী সংঘের উপজেলা সমন্বয়কারী মোঃ নজরুল ইসলাম প্রমুখ। সভা পরিচালনা করেন উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোছাদ্দেক হোসেন।
॥ শ্যামনগর ॥
শ্যামনগর প্রতিনিধি জানান, শ্যামনগর উপজেলা ক্যাম্পাসে ৩ দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলা সমাপ্ত হয়েছে। গতকাল শনিবার শ্যামনগর উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে ৩ দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলার সমাপনী দিনে সভাপতিত্ব করেন শ্যামনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ কামরুজ্জামান। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন এমপি এস এম জগলুল হায়দার। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন শ্যামনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এস এম আতাউল হক দোলন। উন্নয়ন মেলায় বিভিন্ন দফায় বিজয়ীদের পুরস্কৃত করা হয়। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন প্রভাষক আব্দুল্লাহ আল ফারুক।


 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ











‘বাংলাদেশে কোন সংখ্যালঘু নেই’ 

‘বাংলাদেশে কোন সংখ্যালঘু নেই’ 

১৭ অক্টোবর, ২০১৮ ০০:৩৭



ব্রেকিং নিউজ











‘বাংলাদেশে কোন সংখ্যালঘু নেই’ 

‘বাংলাদেশে কোন সংখ্যালঘু নেই’ 

১৭ অক্টোবর, ২০১৮ ০০:৩৭