খুলনা | মঙ্গলবার | ২৩ জানুয়ারী ২০১৮ | ১০ মাঘ ১৪২৪ |

Shomoyer Khobor

স্যাটেলাইট মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রাথমিক শাখা শ্রেণীকক্ষ সংকটসহ নানা জটিলতা

মোহাম্মদ মিলন | প্রকাশিত ০৬ এপ্রিল, ২০১৭ ০১:২৩:০০

শ্রেণী কক্ষ সংকটে ৬টি শ্রেণীর ক্লাস হচ্ছে তিনটি কক্ষে। একটি কক্ষেই দুই শ্রেণীর ক্লাস করছে ক্ষুদে শিক্ষার্থীরা। নেই বাথরুমের ব্যবস্থা। শিক্ষার্থীদের স্বল্প সংখ্যক বেঞ্চ থাকলেও শিক্ষকদের বসার জন্য নেই কোন চেয়ার-টেবিল এবং কমন রুম। এমনই অবস্থা খুলনার খালিশপুর হাউজিং বাজার এলাকায় অবস্থিত স্যাটেলাইট টাউন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রাথমিক শাখার। এ অবস্থায় শ্রেণী কক্ষ সম্প্রসারণসহ জটিলতা নিরসনের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের নিকট জোর দাবি জানিয়েছেন বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী, অভিভাবক ও শিক্ষকরা।
বিদ্যালয়ের শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের সাথে কথা বলে জানা যায়, প্রায় দুইশ’ শিক্ষার্থী নিয়ে স্যাটেলাইট টাউন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রাথমিক শাখার মাত্র তিনটি শ্রেণীকক্ষ রয়েছে। শিশু শ্রেণী থেকে ৫ম শ্রেণী পর্যন্ত স্কুলের শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনার জন্য কমপক্ষে ৬টি শ্রেণী কক্ষের প্রয়োজন। অথচ মাত্র তিনটি শ্রেণীকক্ষে পাঠদান করা হচ্ছে। ৬ জন শিক্ষিকা এসব শিক্ষার্থীদের পাঠদানে হিমসিম খাচ্ছে। বেশিরভাগ সময়ই একটি কক্ষে দু’টি শ্রেণীর পাঠদান করাতে হয়। এতে পাঠদানে জটিলতায় পড়তে হয় শিক্ষিকাদের।
বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণীর ছাত্রী শানজিদা আক্তার শান্ত বলেন, বিদ্যালয়টিতে শিশু শ্রেণী থেকে পড়ছি। তবে শ্রেণীকক্ষ সংকট রয়েছে। ফলে একই কক্ষে প্রথম শ্রেণীর সাথে ক্লাস করতে হয়। এতে বসার সমস্যা হয়। একই ক্লাসের ছাত্র মোঃ নূর হোসেন বলেন, বসতে ও লিখতে সমস্যায় পড়তে হয়। আমাদের আলাদা শ্রেণীকক্ষের প্রয়োজন রয়েছে। পাশের কক্ষেই চতুর্থ ও দ্বিতীয় শ্রেণীর ক্লাস নেয়া হয়। একই সূরে কথা বলেন চতুর্থ শ্রেণীর শিক্ষার্থী হুমায়রা আফরিন মৌ ও তিথি রানী। বিদ্যালয়ের সামনে কথা হয় তৃতীয় শ্রেণীর ছাত্র সাইদুর রহমান সজিবের মা সাবানা বেগমের সাথে। তিনি অভিযোগ করে বলেন, শ্রেণীকক্ষ সংকটের কারণে একই কক্ষে দুই ম্যাডাম ক্লাস নেয়। এতে ছেলে-মেয়েদের গাদাগাদি করে বসতে হয়। তিনি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের নিকট শ্রেণীকক্ষ বৃদ্ধির দাবি জানান।  
সিনিয়র শিক্ষিকা ইশরাত জাহান বলেন, বিদ্যালয়ের নিবন্ধন হয়েছে। এখন শ্রেণীকক্ষের সমস্যার সমাধান করা হলে শিক্ষার্থীদের পাঠদানে সহায়ক হবে। এছাড়া নেই শিক্ষকদের বসার জন্য কোন কমন রুম, চেয়ার- টেবিল। পরীক্ষার সময়ে মাধ্যমিক শাখা থেকে আনতে হয়। তিনি এ সংকট থেকে নিরসনে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানান।
স্যাটেলাইট টাইন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আমান উল্লাহ শেখ বলেন, ছেলে-মেয়েদের জন্য কক্ষ সংকট একটি বড় সমস্যা হয়ে দেখা দিয়েছে। মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রাথমিক শাখার শ্রেণী কক্ষ সংকটের কারণে সমস্যায় পড়তে হয়।

 

 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ


এইচএসসি পরীক্ষা  ২ এপ্রিল শুরু

এইচএসসি পরীক্ষা  ২ এপ্রিল শুরু

১৬ জানুয়ারী, ২০১৮ ০০:১৫








পরিমার্জিত হলো মাধ্যমিকের ১১ পাঠ্যবই

পরিমার্জিত হলো মাধ্যমিকের ১১ পাঠ্যবই

১২ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ২৩:৫৯




ব্রেকিং নিউজ